মার্কিন ঘাঁটিতে হামলা চালিয়েছে আল শাবাব

সোমালিয়ায় অবস্থিত মার্কিন স্পেশাল ফোর্সের একটি ঘাঁটিতে হামলা চালিয়েছে সোমালিয়ার আল শাবাব বিদ্রোহীরা।

সোমবার ওই ঘাঁটিতে সেখানকার ইতিহাসের সবচেয়ে ভয়াবহ হামলাটি চালানো হয়। এতে কয়েকজন মার্কিন সেনা আহত হয়েছেন বলে জানা গেলেও নিহতের কোনো খবর পাওয়া যায়নি।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, মার্কিন স্পেশাল ফোর্সের ওই ঘাঁটি সোমালিয়ান কমান্ডোদের ট্রেনিংয়ের জন্য ব্যবহার করা হতো। এমনকি যুক্তরাষ্ট্রের নেতৃত্বে ড্রোন হামলাও চালানো হতো এখান থেকে।

সোমালিয়ায় হোটেলের সামনে বোমা হামলা, নিহত ১৭

সোমালিয়ার রাজধানী মোগাদিসুর আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরের নিকটবর্তী একটি হোটেলের সামনে হওয়া বোমা হামলায় অন্তত ১৭ জন নিহত এবং ২৮ জন আহত হয়েছে।

বার্তা সংস্থা রয়টার্স এক প্রতিবেদনে জানায়, মোগাদিসু বিমানবন্দরে প্রবেশ পথে অবস্থিত চেকপয়েন্টে এই বোমা হামলা করা হয়।

সোমালিয়ায় জাতিসংঘ সমর্থিত সরকার পতনের জন্য দেশটির বিভিন্ন স্থানে বোমা হামলা ঘটানো জঙ্গি সংগঠন আল-শাবাব এই হামলার দায় স্বীকার করেছে।

মোগাদিসু শহরের মদিনা হাসপাতালের পরিচালক মোহাম্মদ ইউসুফ বলেন, হোটেলের সামনে হওয়া বোমা হামলায় ১৭ জন নিহত হয়েছে এবং ২৮ জন আহত হয়েছে যার মধ্যে ১২ জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

সোমালিয়ার হোটেলে সশস্ত্র হামলা, সাংবাদিক ও এমপিসহ নিহত অন্তত ১২

সোমালিয়ার একটি বন্দর নগরে এক হোটেলে আত্মঘাতী বোমা হামলাসহ বন্দুক হামলায় সাংবাদিক, সাবেক মন্ত্রী ও আইন প্রণেতাসহ অন্তত ১২ জন নিহত হয়েছেন বলে স্থানীয় গণমাধ্যমগুলো জানিয়েছে।

হোটেলের নিরাপত্তারক্ষী ও হামলা থেকে বেঁচে ফেরা কয়েকজনের বরাত দিয়ে ব্রিটিশ গণমাধ্যম বিবিসি এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, স্থানীয় সময় গতকাল শুক্রবার সোমালিয়ার দক্ষিণাঞ্চলীয় বন্দর নগর কিসমায়োর আসাসে নামের হোটেলের ভেতর গাড়ি ঢুকিয়ে বিস্ফোরণ ঘটায় একজন আত্মঘাতী বোমা হামলাকারী। এরপর হোটেলে ঢুকে এলোপাতাড়ি গুলি ছুড়তে থাকে কয়েকজন বন্দুকধারী।

সোমালিয়ায় বিচারপতিকে লক্ষ্য করে জঙ্গি হামলায় নিহত ১১

সোমালিয়ার রাজধানী মোগাদিসুতে এক শক্তিশালী বিস্ফোরণে কমপক্ষে ১১ ব্যক্তি নিহত হয়েছেন।

ইসলামী চরমপন্থী গোষ্ঠী আল-শাবাব দাবি করেছে, তাদের গতকাল বৃহস্পতিবারের হামলার লক্ষ্যবস্তু ছিল মক্কা আল মুকাররমা হোটেল। তবে পুলিশের ভাষ্য, জঙ্গিরা একজন বিচারপতিকে হত্যার জন্য বোমার বিস্ফোরণ ঘটায়।

পুলিশ কর্মকর্তা মোহাম্মদ হোসাইনের বরাত দিয়ে বার্তা সংস্থা ইউএনবির এক প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়েছে, আপিল আদালতের প্রধান বিচারপতি আবশির ওমরের বাসভবনের কাছে গাড়িবোমাটি বিস্ফোরিত হয় এবং বাড়ির বাইরে মোতায়েন নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যদের সঙ্গে বন্দুকধারীদের গোলাগুলি হয়েছে।

সোমালিয়ায় বোমা বিস্ফোরণে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৩৯

সোমালিয়ায় বোমা বিস্ফোরণে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৩৯ জনে পৌঁছেছে বলে দেশটির পুলিশ বিভাগ জানিয়েছে। নিহতের সংখ্যা আরো বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

ইনডিপেনডেন্টে প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে জানা যায়, গতকাল শুক্রবার বিকেলে রাজধানী মোগাদিসুর একটি হোটলের বাইরে ওই বোমা বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে।

দেশটির পুলিশ বিভাগের কর্মকর্তা মোহাম্মদ হুসেইন আজ শনিবার জানান, ‘আমরা জানাচ্ছি যে গতকালকের বোমা হামলায় ৩৯ জন নিহত ও ৪০ জন আহত হয়েছেন। মৃতের সংখ্যা আরো বাড়তে পারে, কেননা এখন পর্যন্ত আরো কিছু লোক নিখোঁজ’।

সোমালিয়ায় যুক্তরাষ্ট্রের ‘হামলায় ৬০ জঙ্গি নিহত’

সোমালিয়ার মধ্যাঞ্চলে যুক্তরাষ্ট্রের বিমান হামলায় ৬০ জন নিহত হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের সামরিক বাহিনী এ খবর জানিয়েছে। তাদের দাবি, নিহতরা জঙ্গি সংগঠন আল শাবাবের সদস্য।

শুক্রবার চালানো বিমান হামলাটিকে ‌‘নির্ভুল’ দাবি করে যুক্তরাষ্ট্রের দেওয়া বিবৃতিতে বলা হয়েছে, এতে কোনো বেসামরিক লোকের হতাহতের ঘটনা ঘটেনি। সংবাদ মাধ্যম বিবিসি এ তথ্য দিয়েছে।

আল শাবাবকে প্রতিরোধে সোমালিয়ার সেনাবাহিনীর সঙ্গে যৌথ কার্যক্রমের অংশ হিসেবে যুক্তরাষ্ট্রের সামরিক বাহিনী এই হামলা চালায়।

সোমালিয়ায় আত্মঘাতী গাড়িবোমা হামলায় নিহত ১৮

সোমলিয়ার রাজধানী মোগাদিসুতে দুটি আত্মঘাতী গাড়িবোমা হামলায় কমপক্ষে ১৮ জন নিহত এবং ২০ জন আহত হয়েছে। এ সময় পাঁচজন হামলাকারী গুলিবিদ্ধ হয়ে নিহত হয় বলে জানায় স্থানীয় পুলিশ।

গতকাল শুক্রবার দেশটির রাষ্ট্রপতির বাসভবনের ফটকের সামনে এবং জাতীয় গোয়েন্দা সংস্থার কাছাকাছি স্থানে আলাদা দুটি বোমা বিস্ফোরণে এ হতাহতের ঘটনা ঘটে।

বিবিসি জানিয়েছে, ইসলামভিত্তিক জঙ্গি সংগঠন আল-শাবাব এ হামলার দায় স্বীকার করেছে। একটি জাতীয় নিরাপত্তা বাহিনীকে লক্ষ্য করে এ হামলা চালানো হয় বলে তারা স্বীকার করে।

সোমালিয়ায় ফের বোমা হামলা, নিহত ১৪

সোমালিয়ার রাজধানী মোগাদিসুতে আবার জোড়া বিস্ফোরণে অন্তত ১৪ জন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন আরো কয়েকজন।

স্থানীয় সময় শনিবার এ বিস্ফোরণ ঘটানো হয়। এর দুই সপ্তাহ আগে একই দিনে মোগাদিসুতে দুটি বিস্ফোরণে এখন পর্যন্ত ৩৫৮ জন নিহতের খবর পাওয়া গেছে।

আল-কায়েদার সঙ্গে সম্পর্কিত আল-শাবাব নামে একটি জঙ্গি গ্রুপ এই হামলার দায় স্বীকার করেছে। এখন গ্রুপটির নিয়মিত নিশানায় পরিণত হয়েছে মোগাদিসু। তারা সরকারের সঙ্গে যুদ্ধে নেমেছে।

সোমালিয়ায় গাড়িবোমা হামলায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ২৭৬

সোমালিয়ার রাজধানী মোগাদিসুতে গাড়িবোমা হামলায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ২৭৬ জনে দাঁড়িয়েছে। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন কমপক্ষে ৩০০ জন।

কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আলজাজিরা জানায়, স্থানীয় সময় শনিবার মোগাদিসুর ‘শারাফি’ নামে একটি হোটেলের প্রবেশপথে এ হামলা চালানো হয়। হামলার পর থেকে দফায় দফায় বাড়ছে হতাহতের সংখ্যা। এই সংখ্যা আরো বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

বিস্ফোরণের পর দেশটির পুলিশ কর্মকর্তা মোহাম্মদ হুসেইন বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে জানান, এটি একটি ট্রাকবোমা হামলা ছিল। ঘটনাস্থলে এখনো আগুন জ্বলছে।

সোমালিয়ায় গাড়িবোমা হামলা, নিহতের সংখ্যা বেড়ে ২৩০

সোমালিয়ার রাজধানী মোগাদিসুতে গাড়িবোমা হামলায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ২৩০ জনে দাঁড়িয়েছে। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন কমপক্ষে ২৫০ জন।

স্থানীয় সময় শনিবার মোগাদিসুর ‘শারাফি’ নামের একটি হোটেলের প্রবেশ পথে এ হামলা চালানো হয়। হামলার পর থেকে দফায় দফায় বাড়ছে হতাহতের সংখ্যা। এই সংখ্যা আরো বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

বিস্ফোরণের পর দেশটির পুলিশ কর্মকর্তা মোহাম্মদ হুসেইন বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে জানান, এটি একটি ট্রাক বোমা হামলা ছিল। ঘটনাস্থলে এখনো আগুন জ্বলছে।

Pages