Beta

অস্ট্রেলিয়ার ভিত নাড়িয়েও জিততে পারেনি পাকিস্তান

১২ জুন ২০১৯, ২৩:২৩

স্পোর্টস ডেস্ক

পাকিস্তান দল সম্পর্কে আগাম মন্তব্য বেশ কঠিন। তারা এমন অনেক সাফল্য পেয়েছে যা ভাবনাতীত। চলমান বিশ্বকাপের প্রথম ম্যাচে যারা মাত্র ১০৫ রানে ইনিংস গুটিয়ে নিয়েছে, তারাই কি না দ্বিতীয় ম্যাচে আসরের সবচেয়ে ফেভারিট দল ইংল্যান্ড হারিয়ে দেয়। নিজেদের চতুর্থ ম্যাচে জয়ের সম্ভাবনা তৈরি করেও শেষ পর্যন্ত পারেনি। অস্ট্রেলিয়ার কাছে হেরে গেছে ৪১ রানে।

বড় লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে পাকিস্তানের শুরুটা মোটেও ভালো না হলেও শেষ দিকে এসে দারুণ খেলছিল তারা। বিশেষ করে অষ্টম উইকেট জুটির দৃঢ়তা জয়ের সম্ভাবনাও তৈরি করেছিল। কিন্তু শেষ পর্যন্ত পারেনি। ইমাম-উল হক ৫৩, মোহাম্মদ হাফিজ ৪৬, ওয়াহাব রিয়াজ ৪৫ ও সরফরাজ আহমে ৪০ রান করেছেন ঠিক, তা দলের জয়ের জন্য যথেষ্ট ছিল না।  ২৬৬ রানে অলআউট হয় পাকিস্তান।

এর আগে প্রথমে ব্যাট করে অস্ট্রেলিয়া ৩০৭ রান করে। অবশ্য সংগ্রহটা আরো বড় হতো, যদি মোহাম্মদ আমিরের দুর্দান্ত বোলিংয়ে অস্ট্রেলিয়ার লাগাম না টানত পাকিস্তান।

৪২ ওভার শেষে অসিদের রান ছিল চার উইকেটে ২৭৭।  সাড়ে তিনশ করাও কঠিন ছিল না। কিন্তু বাকি ছয় উইকেট হারিয়েছে মাত্র ৩০ রানের মধ্যেই। পাকিস্তানি পেসার মোহাম্মদ আমির ক্যারিয়ার সেরা বোলিং করে অস্ট্রেলিয়ার ভিত নাড়িয়ে দেন। তিনি ৩০ রানে পাঁচ উইকেট পান।

অস্ট্রেলিয়ান দুই ওপেনার ডেভিড ওয়ার্নার ও অ্যারন ফিঞ্চ দারুণ খেলেছেন। ওপেনিং জুটিতেই তারা তুলে ফেলেন ১৪৬ রান। ফিঞ্চ ৮৪ বলে ছয়টি চার ও চার ছক্কায় ৮২ রান করেন।

স্মিথ অবশ্য খুব বেশিদূর এগোতে পারেননি। ১০ রান করে হাফিজের শিকার হন। গ্লেন ম্যাক্সওয়েল ১০ বলে ২০ রান, ডেভিড ওয়ার্নার ১১১ বলে ১১ বাউন্ডারি এক ছক্কায়  ১০৭ রানের চমৎকার ইনিংস খেলেন। তাঁর ইনিংসের ওপর ভর করেই পাঁচবারের বিশ্বচ্যাম্পিয়নরা এই বড় সংগ্রহ গড়েন।

এদিনের জয়ে অস্ট্রেলিয়া চার ম্যাচে ছয় পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে। এক ম্যাচ কম খেলে সমান পয়েন্ট নিয়ে তাদের ওপরে আছে নিউজিল্যান্ড। আর চার ম্যাচে তিন পয়েন্ট নিয়ে পাকিস্তান আছে অষ্টম স্থানে।

Advertisement