Beta

বিশ্বকাপ নাকি ‘বৃষ্টিকাপ’, টুইটার ভাসছে মিমের বন্যায়

১২ জুন ২০১৯, ১৫:৩৮ | আপডেট: ১২ জুন ২০১৯, ১৫:৪৪

স্পোর্টস ডেস্ক

‘বৃষ্টিতে পরিত্যক্ত বিশ্বকাপ’ কিংবা ‘আইসিসি বৃষ্টি বিশ্বকাপ’—এমন নানা মিম ছড়িয়ে পড়েছে টুইটারে। হবে নাই বা কেন? চলতি আইসিসি ক্রিকেট বিশ্বকাপে এখন পর্যন্ত ১৬টি ম্যাচ অনুষ্ঠিত হলেও এরই মধ্যে পরিত্যক্ত ম্যাচের সংখ্যায় রেকর্ড গড়েছে ইংল্যান্ড-ওয়েলস বিশ্বকাপ। অথচ বিশ্বকাপে বাকি আছে আরো ৩২টি ম্যাচ!

চার বছর পরপর আসে ক্রিকেটের এই সবচেয়ে বড় আসর। তাই এর জন্য অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করে ক্রিকেটভক্তরা। কিন্তু ইংল্যান্ডে চলমান বিশ্বকাপে দাপট দেখাচ্ছে বৃষ্টি। এবারের বিশ্বকাপকে ‘রেইন ক্রিকেট’ বলছেন নেটিজেনরা। বৃষ্টি নিয়ে টুইটারে ছড়িয়ে পড়েছে নানান চমকপ্রদ মিম।


এবারের বিশ্বকাপে এখন পর্যন্ত পরিত্যক্ত হওয়া তিনটি ম্যাচ হলো—গত ৭ জুন ব্রিস্টলের পাকিস্তান-শ্রীলঙ্কা ম্যাচ, ১০ জুন সাউদাম্পটনের দক্ষিণ আফ্রিকা-ওয়েস্ট ইন্ডিজ ম্যাচ এবং সর্বশেষ ১১ জুন ব্রিস্টলের বাংলাদেশ-শ্রীলঙ্কা ম্যাচ। এর মধ্যে প্রথম ও শেষের ম্যাচটি কোনোরকম টস ছাড়াই পরিত্যক্ত হয়েছে।

এর আগে ১৯৯২ সালে অস্ট্রেলিয়া-নিউজিল্যান্ড ও ২০০৩ সালের দক্ষিণ আফ্রিকা-কেনিয়া-জিম্বাবুয়ে বিশ্বকাপে সর্বোচ্চ সংখ্যক দুটি করে ম্যাচ পরিত্যক্ত হয়েছিল।

১৯৯২ সালের বিশ্বকাপে ভারত-শ্রীলঙ্কা ম্যাচ ও ইংল্যান্ড-পাকিস্তান ম্যাচ বৃষ্টির কারণে এবং একই কারণে ২০০৩ সালের বিশ্বকাপে বাংলাদেশ-ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও পাকিস্তান-জিম্বাবুয়ে ম্যাচ পরিত্যক্ত হয়েছিল।

এ ছাড়া আরো চারটি বিশ্বকাপে একটি করে ম্যাচ পরিত্যক্ত হওয়ার ঘটনা ঘটেছিল। ১৯৯৬ সালের বিশ্বকাপে কেনিয়া-জিম্বাবুয়ে ম্যাচ, ১৯৯৯ সালের বিশ্বকাপে নিউজিল্যান্ড-জিম্বাবুয়ে ম্যাচ, ২০১১ সালের বিশ্বকাপে অস্ট্রেলিয়া-শ্রীলঙ্কা ম্যাচ এবং ২০১৫ সালের বিশ্বকাপে বাংলাদেশ-অস্ট্রেলিয়া ম্যাচ পরিত্যক্ত হয়েছিল।

Advertisement