ওয়ার্নারের ব্যাটে কী আছে?

১০ জুন ২০১৯, ১৬:১৪

অনলাইন ডেস্ক

ব্যাটের হাতলের ঠিক ওপরে ‘সেন্সরটি’ লাগানো। ব্যাট করার সময় খুঁটিনাটি সব হিসেব রাখবে ওই সেন্সর। ওই তথ্য পাওয়া যায় একটি মোবাইল অ্যাপের মাধ্যমে।

অস্ট্রেলিয়ার ডেভিড ওয়ার্নার ওই সেন্সর ব্যবহার করছেন। যার নাম ‘ব্যাট সেন্স’। এটি ব্যবহারের জন্য ২০১৭ সালেই অনুমোদন দিয়েছিল আইসিসি। কিন্তু সেন্সরটি ব্যবহারে কারো আগ্রহই দেখা যায়নি। তবে অন্যরা আগ্রহ না পেলেও অস্ট্রেলিয়ার ওপেনার ডেভিড ওয়ার্নার নিজের ব্যাটে সেন্সরটি নিয়ে কাজ করছেন।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম ‘দ্য হিন্দু’ জানিয়েছে, ব্যাঙ্গালুরুভিত্তিক একটি কোম্পানি ওই সেন্সরটি বাজারে ছেড়েছে। এর নাম দেওয়া হয়েছে ‘ব্যাট সেন্স’। ডেভিড ওয়ার্নার এরই মধ্যে সেন্সরটি তাঁর প্রস্তুতিতে ব্যবহার করেছেন।

সেন্সরটি ব্যাটের হাতলের ঠিক উপরেই যুক্ত করতে হয়। এর ফলে খেলার সময় ব্যাটের গতি, ব্যাটের শক্তিমত্তাসহ আরো কিছু তথ্য একটি মোবাইল অ্যাপে জমা হয়। অ্যাপটির নাম ‘ক্লাউড স্টোরেজ’।

আর এসব তথ্য জানার ফলে একজন ব্যাটসম্যান কেমন পারফরম্যান্স করছেন এ ব্যাপারে সহজেই জানতে পারেন।

ভারতের সাবেক উইকেটরক্ষক ও ক্রিকেট বিশ্লেষক দীপ দাশগুপ্ত বলেন, ‘সেন্সরটি ব্যবহারে যেসব তথ্য পাওয়া যাবে, তা একজন পেশাদার ক্রিকেটারের জন্য অনেক সহায়ক হবে।’

এই সেন্সরটি ব্যবহার করে বিভিন্ন তথ্য পাওয়ার পর কোচরা তাঁদের খেলোয়ারদেরকে আরো ভালো ভাবে প্রশিক্ষণ দিতে পারবেন বলেও জানান দীপ দাশগুপ্ত।