Beta

হোটেলে জিম্মি করে বন্দুক হামলা, নিহত ২০, মুক্ত ১২৬

১৬ জানুয়ারি ২০১৬, ০৮:৫৫ | আপডেট: ১৬ জানুয়ারি ২০১৬, ১৫:২৬

অনলাইন ডেস্ক
বন্দুকধারীদের হামলার শিকার হোটেলটির পাশের রাস্তা দিয়ে যাচ্ছেন এক মোটরসাইকেল আরোহী। ছবি : রয়টার্স

পশ্চিম আফ্রিকার দেশ বুরকিনা ফাসোর রাজধানী ওয়াগাদুগোর একটি হোটেলে সন্ত্রাসী হামলা হয়েছে। সন্ত্রাসীরা হোটেলটির অতিথিদের জিম্মি করে রেখে ২০ জনকে গুলি করে হত্যা করে। সর্বশেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত ফরাসি ও মার্কিন সেনাদের অভিযানে ১২৬ জন জিম্মিকে উদ্ধার করা হয়েছে।

বিবিসি, এফপি ও রয়টার্স জানিয়েছে, শুক্রবার সন্ধ্যায় ওয়াগাদুগোর বিলাসবহুল স্পেনডিড হোটেলে হামলা চালায় বন্দুকধারীরা। হোটেলের একটি ক্যাফে থেকে ঝড়ো হামলা চালিয়ে হোটেলটিতে ঢুকে পড়ে সন্ত্রাসীরা। পরে হোটেলটির অতিথিদের জিম্মি করে তাঁরা।

রয়টার্সের খবরে বলা হয়, এখনো বন্দুকধারীদের হাতে জিম্মি আছেন হোটেলটিতে থাকা কয়েকজন। তাঁদের উদ্ধারে হোটেলের আশপাশে সতর্ক অবস্থানে আছেন আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা।

স্থানীয় একটি হাসপাতালের পরিচালক রবার্ট স্যানগের রয়টার্সকে বলেন, জিম্মি অবস্থা থেকে উদ্ধার পাওয়া অনেকে জানিয়েছে, তাঁরা ২০ জনকে নিহত হতে দেখেছেন।

এএফপি জানিয়েছে, সর্বশেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত ১২৬ জন জিম্মিকে উদ্ধার করা হয়েছে।

বুরকিনা ফাসোর তথ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, আল-কায়েদা ইন দি ইসলামিক মাগরেব (একিউআইএম) এ হামলার দায় স্বীকার করেছে।

বুরকিনা ফাসোর পররাষ্ট্রমন্ত্রী আলফা ব্যারি টেলিফোনে রয়টার্সকে বলেন, নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা বন্দুকধারীদের ওপর হামলার অপেক্ষায় আছে। তিনি আরো বলেন, হোটেলটিতে বিদেশিরা প্রায়ই অবস্থান করে থাকে।

আল-কায়েদাসহ ইসলামপন্থী জঙ্গি সংগঠনগুলোর অন্যতম ঘাঁটি মালির সীমান্তবর্তী দেশ বুরকিনা ফাসো। দেশটিতে কয়েক বছর ধরে রাজনৈতিক অস্থিরতা চলছে। তবে কয়েক বছরের মধ্যে এই প্রথম ইসলামপন্থী জঙ্গি সংগঠনের হামলার শিকার হলো  বুরকিনা ফাসো।

ইউটিউবে এনটিভির জনপ্রিয় সব নাটক দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Advertisement