Beta

গ্রিসের সীমান্ত এলাকায় বাংলাদেশিদের বিক্ষোভ

‘গুলি করে মারো নয়তো বাঁচাও’

২৪ নভেম্বর ২০১৫, ২৩:০৬

অনলাইন ডেস্ক

গ্রিস-মেসেডোনিয়া সীমান্তে আটকেপ ‘অর্থনৈতিক অভিবাসী’রা গতকাল সোমবার থেকে বিক্ষোভ শুরু করেছে। এদের মধ্যে অনেক বাংলাদেশিও আছেন। এদের অনেকে শরীরের স্লোগান লিখেছেন ‘গুলি করে মারো নয়তো বাঁচাও’। 

বার্তা সংস্থা এএফপি জানিয়েছে, অনেক অভিবাসী মধ্যপ্রচ্য ও তুরস্ক হয়ে গ্রিসে পৌঁছেছে। এখন তাঁরা পশ্চিম ইউরোপে যাওয়ার চেষ্টা করছে। কিন্তু ইউরোপে অভিবাসীদের আগমনের ওপর কড়াকড়ি আরোপ করা হয়েছে। আর মেসেডোনিয়া পুলিশ যুদ্ধবিধ্বস্ত দেশগুলো ছাড়া অন্য কোনো দেশের নাগরিকদের সীমান্ত পার হতে দিচ্ছে না। তাই ভাগ্য পরিবর্তনের আশায় পাকিস্তান, ইরান, মরক্কো, বাংলাদেশসহ বিভিন্ন দেশ থেকে অভিবাসন প্রত্যাশীরা সীমান্তে আটকে পড়েছে। এরই মধ্যে গতকাল থেকে শুরু হয়েছে প্রচণ্ড ঠাণ্ডা। এই অবস্থায় সীমান্তের কাছে খোলা জায়গায় থাকা মৃত্যুর শামিল। তাই এই ‘অর্থনৈতিক অভিবাসী’রা সীমান্ত পার হতে দেওয়ার দাবিতে বিক্ষোভ শুরু করেছে।

বিক্ষোভে অংশ নেওয়া বাংলাদেশি অনেকেই খালি শরীরের ওপরে স্লোগান লিখেছেন, লিখেছেন , ‘গুলি করো নয়তো দয়া করে বাঁচাও’, ‘গুলি করে মারো নয়তো বাঁচাও দয়া করে বাংলাদেশকে বাঁচাও’, ‘গুলি করো আমরা বাংলাদেশে ফিরে যাব না’। 

জানা গেছে, অর্থনৈতিক অভিবাসীদের মূল গন্তব্য সুইডেন, জার্মানি, ফ্রান্সসহ পশ্চিম ইউরোপের উন্নত দেশ। অভিবাসন প্রত্যাশীদের দেশ বিবেচনা না করে সীমান্ত পার হতে দেওয়ার দাবি জানিছে মানবাধিকার সংগঠনগুলো।

ইউটিউবে এনটিভির জনপ্রিয় সব নাটক দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Advertisement