Beta

শান্তি আলোচনা বাতিল হওয়ায় যুক্তরাষ্ট্রের ক্ষতি সবচেয়ে বেশি : তালেবান

০৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১৫:২৭

অনলাইন ডেস্ক

তালেবানের সঙ্গে কথিত শান্তি আলোচনা বাতিল করার যে সিদ্ধান্ত মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ঘোষণা করেছেন, তাতে যুক্তরাষ্ট্রই সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হবে বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছে তালেবান জঙ্গিগোষ্ঠী। তালেবান হুমকি দিয়ে বলেছে, শান্তি আলোচনা বাতিল করার ফলে আফগানিস্তানে মোতায়েন মার্কিন সেনাদের জীবন আরো বেশি হুমকির মুখে পড়বে।

ট্রাম্পের সিদ্ধান্তের প্রতিক্রিয়ায় রোববার তালেবান এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, শান্তি আলোচনা বাতিল করার ফলে আরো মার্কিন নাগরিকের প্রাণহানি হবে। অন্যদিকে জঙ্গিদের ওপর সামরিক চাপ অব্যাহত রাখার অঙ্গীকার করেছে যুক্তরাষ্ট্র। সংবাদমাধ্যম দ্য গার্ডিয়ানের প্রতিবেদন থেকে এসব তথ্য জানা গেছে।

এদিকে, সংলাপ নাকচ করায় ট্রাম্পের সমালোচনা করে তালেবান মুখপাত্র জাবিহউল্লাহ মুজাহিদ জানান, আফগানিস্তানে হামলা চালানো বন্ধ করেনি যুক্তরাষ্ট্র।

জাবিহউল্লাহ মুজাহিদ এক বিবৃতিতে বলেন, ‘এর ফলে আরো ক্ষতির সম্মুখীন হবে যুক্তরাষ্ট্র। তাদের (যুক্তরাষ্ট্র) গ্রহণযোগ্যতা হুমকির মুখে পড়বে। তাদের শান্তিবিরোধী অবস্থান বিশ্বের কাছে প্রকাশ্য হয়ে উঠবে। প্রাণহানি ও সম্পদের ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ বাড়বে।’

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প গত শনিবার আফগানিস্তানের প্রেসিডেন্ট আশরাফ ঘানি ও তালেবান নেতাদের সঙ্গে ক্যাম্প ডেভিডে প্রস্তাবিত বৈঠক বাতিল করার পাশাপাশি তালেবানের সঙ্গে কথিত শান্তি আলোচনা বাতিল করে দেন। তিনি শনিবার রাতে ধারাবাহিক টুইটার বার্তায় লেখেন, ‘রোববার ক্যাম্প ডেভিডে তালেবান নেতাদের সঙ্গে আমার বৈঠক হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু সে বৈঠক বাতিল করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি।’

ট্রাম্প আরো জানান, তালেবানের সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রের আলোচনা স্থগিত রাখারও নির্দেশ দিয়েছেন তিনি। এর কারণে হিসেবে ট্রাম্প কাবুলে সাম্প্রতিক বোমা হামলায় একজন মার্কিন সেনার নিহত হওয়ার কথা উল্লেখ করেন। ওই হামলার দায় স্বীকার করেছিল তালেবান।

Advertisement