Beta

প্রাণী যে প্রজাতিরই হোক, বড় পরিচয় মা (ভিডিওসহ)

০৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ২৩:১৯

অনলাইন ডেস্ক

মায়ের ভালোবাসা চিরন্তন। যুগে যুগে মায়ের অকৃত্রিম ভালোবাসা নিয়ে রচিত হয়েছে অসংখ্য সাহিত্যকর্ম। নিজের জীবনকে হুমকির মুখে ফেলে দিয়ে সন্তানের জীবন রক্ষা মায়ের পক্ষেই সম্ভব। তুমুল জনপ্রিয় এক বাংলা গানে তাই বলা হয়েছে, সন্তানের গায়ের চামড়া দিয়ে পাপোশ তৈরি করে দিলেও মায়ের এক ফোঁটা দুধের মূল্য শোধ হবে না। এবার মায়ের ভালোবাসার অসাধারণ এক নিদর্শন উঠে এসেছে গণমাধ্যমে।

ভারতীয় গণমাধ্যম ইন্ডিয়া টাইমসের এক খবরে বলা হয়েছে, ভারতের অ্যানিমেল এইডের কাছে সম্প্রতি একটি ফোন কল আসে। সংস্থাটিকে জানানো হয়, ‘এক মা কুকুর কাঁদছে।’

সেখানে একটি বিধ্বস্ত ভবনের নিচে ওই মা কুকুরের বাচ্চারা আটকে ছিল। ওই কুকুর তার বাচ্চাদের উদ্ধারের জন্য সাহায্য প্রার্থনা করে। উদ্ধারের উদ্দেশ্যে অ্যানিমেল এইডের একটি দল সেখানে যায়।

উদ্ধারকারী দলটি তখনো নিশ্চিত ছিল না যে বাচ্চাগুলো বেঁচে আছে কি না। কিন্তু তাদের মা জানত। দলটি ওই কুকুরকে অনুসরণ করে সেখানকার পাথর সরাতে থাকে। ঠিক কোথায় খুঁড়তে হবে, তাও দলটিকে দেখিয়ে দেয় ওই মা কুকুর। দ্রুত কাজ করতেও সে দলটিকে অনুরোধ জানায়, কেননা সে হয়তো বুঝতে পেরেছিল যে তাদের হাতে পর্যাপ্ত সময় নেই। দেরি হলে বাচ্চাগুলো মরে যেতে পারে, এমন ভাবনাও তাড়িয়ে বেড়াচ্ছিল মা কুকুরকে।

তবে বিস্ময়করভাবেই মা কুকুরের নির্দেশিত স্থান থেকেই উদ্ধারকারী দলটি বাচ্চাগুলোকে জীবিতাবস্থায় উদ্ধার করে।

দেখুন ভিডিওটি :

একটির পরে আরো একটি কুকুর যখন বেরিয়ে এলো, ওই মা কুকুর এক মুহূর্তের জন্যও স্থান ছেড়ে যায়নি। বাচ্চাগুলো উদ্ধারের পর ওই মা কুকুরকে বাচ্চাসহ বসবাসের জন্য একটি নিরাপদ স্থানের ব্যবস্থাও করে দেওয়া হয়।

অ্যানিমেল এইডের ইউটিউব চ্যানেলে পোস্ট করা ভিডিওটি এ পর্যন্ত ১৬ লাখেরও বেশিবার দেখা হয়েছে।

Advertisement