Beta

মেট্রোরেলের কাজেই ভেঙে পড়ল উড়ালসেতু?

০৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ২৩:০১

কলকাতা সংবাদদাতা
কলকাতায় গতকাল মঙ্গলবার ভেঙে যায় একটি উড়ালসেতু। ছবি : সংগৃহীত

কলকাতায় মাঝেরহাট উড়ালসেতু ভেঙে পড়ার জন্য অনেকেই মেট্রো রেলের সম্প্রসারণের কাজকে দায়ী করেছেন। এ ব্যাপারে পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায় বলেছেন, ‘মেট্রোর কাজের জন্য জায়গাটিতে ভাইব্রেশন অনেক বেশি হতো। আমরা কোনো অ্যাঙ্গেলকে ছোট করে দেখছি না। কলকাতা পুলিশ মামলা করেছে। ঘটনার তদন্ত হবে।’

আজ বুধবার ওই দুর্ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন মমতা বন্দোপাধ্যায়। বিকেলে দার্জিলিং থেকে ফিরেই তিনি ঘটনাস্থলে যান। সরকারিভাবে এই দুর্ঘটনায় এ পর্যন্ত  দুজনের মৃত্যুর খবর স্বীকার করে নেওয়া হয়েছে। যদিও মঙ্গলবার বিকেলে দুর্ঘটনার পরই পাঁচ জনের মৃত্যু হয়েছে বলে জানা যায়। তবে পরে সরকারের পক্ষ থেকে দাবি করা হয় মারা গেছে একজন। তবে দুর্ঘটনায় আহত একাধিক ব্যক্তির অবস্থা আশঙ্কাজনক।

মুখ্যমন্ত্রী মমতা হতাহতদের জন্য আর্থিক  সাহায্যের কথা ঘোষণা করেন। মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘এই দুর্ঘটনায় মৃতদের পরিবারকে পাঁচ লাখ রুপি সাহায্য দেওয়া হবে। যারা গুরুতর আহত হয়েছে তাদের দেওয়া হবে এক লাখ রুপি এবং আহতদের দেওয়া হবে ৫০ হাজার রুপি।’

উড়ালসেতু দুর্ঘটনার মতো বিষয় নিয়ে আগামীকাল বৃহস্পতিবার জরুরি বৈঠক আহ্বান করেছেন মমতা। তাঁর আমলেই কলকাতায় তিনটি উড়ালসেতু ভেঙে পড়ার ঘটনা ঘটেছে। এর আগে কলকাতার উল্টোডাঙ্গা, পোস্তায় উড়ালসেতু ভেঙে পড়ে।

দুর্ঘটনাস্থল পরিদর্শন শেষে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বলেন, ‘এটা খুব বড় দুর্ঘটনা হতে পারত। হতাহতের সংখ্যা আরো বেশি হতে পারত। তারমধ্যেও দুজনের মৃত্যু হয়েছে। আরো দুজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক রয়েছে।’ তিনি আরো বলেন, ‘বাংলায় ব্রিজের সংখ্যা বেশি। ছয় মাস পরপর আমরা ব্রিজগুলো মনিটর করি। কিন্ত পুরোনো ব্রিজের কাগজ আমাদের কাছে নেই। ওই কাগজগুলো আমরা খুঁজে পাই না। তবে আমরা যথাসম্ভব কাগজ খুঁজে পাওয়ার চেষ্টা করছি।’

ইউটিউবে এনটিভির জনপ্রিয় সব নাটক দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Advertisement