Beta

ভারত থেকে পরিবারে ফিরল চার কিশোর

০৭ আগস্ট ২০১৮, ১৮:৫৪

কলকাতা সংবাদদাতা
ভারত থেকে দেশে নিজ পরিবারের কাছে ফিরেছে চার কিশোর। ছবি : সংগৃহীত

চারজন বাংলাদেশি কিশোরকে ভারত থেকে প্রত্যর্পণ করা হয়েছে। ২০১৬ ও ২০১৭ সালে বিভিন্ন সময়ে অবৈধভাবে ভারতে প্রবেশের পর ধরা পড়ে ওই চার কিশোর।

আজ মঙ্গলবার হিলি সীমান্ত দিয়ে ওই চার কিশোরকে দেশে আনা হয়। ধরা পড়ার পর থেকে  পশ্চিমবঙ্গের দক্ষিণ দিনাজপুর জেলার বালুরঘাটের সরকারি শুভায়ন হোমে ছিল ওই চার কিশোর।  

জানা যায়, বাংলাদেশি ওই চার কিশোরই অত্যন্ত দরিদ্র পরিবারের। তারা মূলত কাজের সন্ধানে দালালের হাত ধরে ভারতে অনুপ্রবেশ করে। ওই চার কিশোর হচ্ছে, মহম্মদ আরিফ, উজ্জ্বল বর্মণ ওরফে মহম্মদ আজাদ, চঞ্চল মালি এবং মুহম্মদ হাবিব। তাদের প্রত্যেকের বয়স ১৪ থেকে ১৭ বছরের মধ্যে।

মুহম্মদ আরিফ মৌলভীবাজার জেলার শ্রীমঙ্গল উপজেলার হবিগঞ্জ গ্রামের বাসিন্দা। উজ্জ্বল বর্মণ রংপুর জেলার পীরগঞ্জ উপজেলার সন্যাসীবাজার গ্রামের বাসিন্দা। চঞ্চলের বাড়ি বাংলাদেশের নওগাঁ জেলার পত্নীতলা উপজেলার চাকনিরকিন গ্রামে। হাবিবের বাড়ি বাংলাদেশের দিনাজপুর জেলার ঘোড়াঘাট উপজেলার ময়ুরবাগ গ্রামে। তারা প্রত্যেকে ২০১৬ এবং ২০১৭ সালের বিভিন্ন সময়ে ভারতে কাজের খোঁজে দালালের মাধ্যমে অবৈধভাবে প্রবেশ করে।

বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) ও ভারতের বর্ডার সিকিউরিটি ফোর্সের (বিএসএফ) উপস্থিতিতে ওই চার কিশোরকে তাদের পরিবারের হাতে তুলে ধরা হয়।

ভারতেরে দিনাজপুর জেলার ‘চাইন্ড লাইনে’র সমন্বয়ক সুরজ দাস বলেন, ‘আমরা ওই নাবালকদের সঙ্গে কথা বলে বাংলাদেশের তাদের পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগ করি। তারপর দুই দেশের সমস্ত আইনি প্রক্রিয়া সম্পন্ন করে তাদের নিজের দেশের পরিবারের হাতে তুলে দেওয়া হলো। এখনো পশ্চিমবঙ্গের শুভায়ন হোমে ২২ জন বাংলাদেশি কিশোর আছে বলে জানান সুরজ দাস। তাদেরকেও বাংলাদেশে তাদের পরিবারের হাতে তুলে দেওয়ার চেষ্টা চলছে। দুই দেশের মধ্যে আইনি জটিলতা মিটলেই ঘরে ফিরবে তারা।’

ইউটিউবে এনটিভির জনপ্রিয় সব নাটক দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Advertisement