Beta

‘পতাকা নকল করো না’, অস্ট্রেলিয়াকে নিউজিল্যান্ড

২৬ জুলাই ২০১৮, ১৮:০৪

অনলাইন ডেস্ক

নিউজিল্যান্ডের ভারপ্রাপ্ত প্রধানমন্ত্রী উইন্সটন পিটার্স তাঁর দেশের পতাকা নকল করার জন্য অস্ট্রেলিয়াকে দোষারোপ করে বলেছেন, অস্ট্রেলিয়ার উচিত নিজেদের পতাকার জন্য আলাদা নকশা খুঁজে বের করা।

আজ বৃহস্পতিবার সিএনএনে প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে এ কথা বলা হয়েছে। 

নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী জেসিন্ডা আর্ডেন মাতৃত্বকালীন ছুটিতে থাকায় উইন্সটন পিটার্স ভারপ্রাপ্ত হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।  

স্থানীয় গণমাধ্যম টিভিএনজেডকে  উইনস্টন পিটার্স বলেন, ‘আমাদের পতাকা, যা  দীর্ঘকাল ধরে আমাদের আছে, তা অস্ট্রেলিয়া নকল করেছে।’

পিটার্স আরো বলেন, ‘দীর্ঘকাল ধরে যে নকশাটি আমাদের পতাকার, অস্ট্রেলিয়ার উচিত নিজেদের পতাকার ক্ষেত্রে সে নকশায় বদল এনে যথার্থ সম্মান দেখানো।’

যুক্তরাজ্যের পতাকার নকশার ভিত্তিতে তৈরি করা নিউজিল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়ার পতাকার মধ্যে আসলেই অনেক সাদৃশ্য আছে। দুই দেশের পতাকাতেই দেখা যায়, গাঢ় নীল রঙের পটভূমিতে বামদিকে ওপরের অংশে ছোট করে বসানো যুক্তরাজ্যের পতাকা আর ডানদিকে গুচ্ছ তারা।

পার্থক্যের মধ্যে রয়েছে, নিউজিল্যান্ডের তারাগুলো লাল রঙের, অস্ট্রেলিয়ার তারা সাদা; আর নিজেদের সাত রাজ্যের প্রতীক হিসেবে নিউজিল্যান্ডের পাঁচ তারার বদলে অস্ট্রেলিয়ার পতাকায় আছে সাত তারা।

১৯০২ সালে নিউজিল্যান্ডের পতাকার সৃষ্টি। তার প্রায় পাঁচ দশক পর ১৯৫৪ সালে অস্ট্রেলিয়ার পতাকার জন্ম।

যদিও সমালোচকরা বলেন, নিউজিল্যান্ডের পতাকা আর ব্রিটিশ নিয়ন্ত্রণাধীন সাবেক অনেক দেশের পতাকাও গুলিয়ে ফেলা যায়, এগুলোর মধ্যে তেমন পার্থক্য নেই। 

সম্প্রতি অস্ট্রেলিয়ার মেলবোর্নে ১৭ বছর বয়সী নিউজিল্যান্ডের এক কিশোরকে আটকের ঘটনার  পর এমন মন্তব্য করলেন নিউজিল্যান্ডের ভারপ্রাপ্ত প্রধানমন্ত্রী পিটার্স। ওই ঘটনায় নিউজিল্যান্ডের রাজধানী ওয়েলিংটনে বিক্ষোভও প্রদর্শন করে দেশটির অধিবাসীরা।

ইউটিউবে এনটিভির জনপ্রিয় সব নাটক দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Advertisement