Beta

সমকামী প্রধানমন্ত্রী পাচ্ছে আয়ার‍ল্যান্ড!

২২ মে ২০১৭, ১৩:৪৯

অনলাইন ডেস্ক

আয়ারল্যান্ডের ইতিহাসে প্রথম সমকামী প্রধানমন্ত্রী হতে যাচ্ছেন লিও বারাডকার। এর আগে পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে আরো তিনজন নেতা সমকামী ছিলেন।

যুক্তরাজ্যের সংবাদমাধ্যম পিংকনিউজ এ খবর জানিয়েছে।

দেশটির বর্তমান প্রধানমন্ত্রী ইন্ডা কেনির স্থলে নতুন নেতা খুঁজতে দলের মধ্যে নির্বাচনের তোড়জোড় চলছে। ১৫ বছর পর চলতি বছরের শুরুতে আয়ারল্যান্ডের মধ্য-ডানপন্থী ফাইন গেইল নেতা ইন্ডা কেনি প্রধানমন্ত্রীর পদ থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা দেন। শক্তিশালী নেতৃত্বের দৌড়ের  তালিকায় লিও বারাডকার এগিয়ে রয়েছেন।

আগামী ২ জুন ভোটের মাধ্যমে ফাইন গেইলের নতুন নেতৃত্ব নির্বাচিত হবে। নিয়ম অনুযায়ী, দলের সংসদ সদস্য, স্থানীয় কাউন্সিলর এবং নিয়মিত পার্টির সদস্যদের ইলেকটোরাল কলেজ ভোটের মাধ্যমে নেতৃত্ব নির্বাচিত হয়। দলের নেতা নির্বাচিত হওয়ার পর লিও স্বাভাবিকবাবেই আস্থা ভোটের মাধ্যমে সংসদ নেতা নির্বাচিত হতে পারবেন। সংসদে ফাইন গেইলের একক সংখ্যাগরিষ্ঠতা রয়েছে।

ভারাদকার বর্তমান সরকারে সামাজিক সুরক্ষামন্ত্রী হিসেবে কাজ করছেন। যদি তিনি নির্বাচিত হন তবে বিশ্বের ইতিহাসে তিনি হবেন চতুর্থ সমকামী সরকারপ্রধান।

বারাডকার বলেন, ‘এটা সত্যিই ভালোভাবে শুরু হয়েছে। সহকর্মীদের কাছে থেকে পাওয়া সমর্থনের স্তরের কাছে আমি সত্যিই নিচু হয়েছি।’

৩৮ বছর বয়সী এই সমকামী নেতার চূড়ায় উঠার জন্য এটি একটি ধাপ। যিনি ২০১৫ সালে সমান বিয়ের গণভোটের সময় একমাত্র সমকামীর জন্য বেরিয়ে আসেন।

বারাডকার বলেন, ‘এটা তেমন কিছু নয়, যা আমাকে সংজ্ঞায়িত করে। আমি একজন অর্ধ-ভারতীয় রাজনীতিবিদ নই, চিকিৎসক রাজনীতিবিদ অথবা সমকামী রাজনীতিবিদ নই। আমি কে এটা তার একটা অংশ। এটা আমাকে সংজ্ঞায়িত করে না, আমি মনে করি এটা আমার চারিত্রিক একটা অংশ।’

লিও’র বয়ফ্রেন্ড ডা. ম্যাট ব্যারেট আশা করছেন, যদি লিও নির্বাচিত হন তাহলে প্রধানমন্ত্রীর সহযোগী হিসেবে তাঁরও একটি পাবলিক প্রোফাইল হবে।

ইউটিউবে এনটিভির জনপ্রিয় সব নাটক দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Advertisement