Beta

ঝালকাঠিতে ডাকাতি করে পালানোর সময় দুজনকে গণধোলাই

১০ নভেম্বর ২০১৮, ১৭:৪৪

ঝালকাঠির কাঁঠালিয়া উপজেলার দক্ষিণ চেঁচরি গ্রামবাসীর গণপিটুনিতে আহত সন্দেহভাজন দুই ডাকাত। ছবি : এনটিভি

ঝালকাঠির কাঁঠালিয়া উপজেলার দক্ষিণ চেঁচরি গ্রামে দুই বাড়িতে ডাকাতি শেষে পালানোর সময় সন্দেহভাজন দুজনকে পিটুনি  দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করেছে স্থানীয় জনতা। আজ শনিবার ভোর ৪টার দিকে ডাকাতির ঘটনা ঘটে।

পরে ওই দুজনকে আমুয়া ইউনিয়ন স্বাস্থ্যকেন্দ্রে চিকিৎসা শেষে আজ শনিবার বেলা ১১টায় থানায় নিয়ে যায় পুলিশ।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, রাতে দক্ষিণ চেঁচরি গ্রামের হাবিব হাওলাদারের ঘরে আট-দশজনের একটি ডাকাতদল ঘরের জানালা ভেঙে ভেতরে প্রবেশ করে। দেশীয় অস্ত্রের মুখে পরিবারের লোকজনকে জিম্মি করে ঘণ্টাব্যাপী ডাকাতি চালায় তারা। পরে ডাকাতদল পাশের আনোয়ার হোসেনের বাড়িতে ডাকাতি করে। সে সময় পরিবারের লোকজনের চিৎকার শুনে স্থানীয়রা চারদিক ঘিরে ফেলে। পালিয়ে যাওয়ার সময় ডাকাতদলের সদস্য মো. জলিল (৪০) ও শহীদ মীরকে (৫৫) আটক করে তাদের গণধোলাই দিয়ে রাতেই পুলিশে সোপর্দ করা হয়। অন্যরা পালিয়ে যায়।

পুলিশ দুই ডাকাতকে চিকিৎসা দিয়ে থানায় নিয়ে যায়। আটক জলিল বরগুনার বেতাগী ও শহীদ মীর খুলনার ফুলতলা এলাকার বাসিন্দা।

কাঁঠালিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এনামুল হক জানান, আটক দুজন দক্ষিণাঞ্চলের চিহ্নিত ডাকাত। তারা আন্তজেলা ডাকাতদলের সদস্য। তাদের বিরুদ্ধে দক্ষিণাঞ্চলের বিভিন্ন থানায় একাধিক ডাকাতির মামলা রয়েছে।

দক্ষিণ চেঁচরির ঘটনায়ও তাদের বিরুদ্ধে ডাকাতি মামলা দায়ের করা হবে বলে জানান ওসি।

ইউটিউবে এনটিভির জনপ্রিয় সব নাটক দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Advertisement