গুয়েতেমালার নতুন প্রেসিডেন্ট জিমি মোরালেসের শপথ

১৫ জানুয়ারি ২০১৬, ২০:২০

অনলাইন ডেস্ক
কৌতুক অভিনেতা জিমি মোরালেস। ফাইল ছবি

গুয়াতেমালার নতুন প্রেসিডেন্ট হিসেবে শপথ নিয়েছেন কৌতুক অভিনেতা জিমি মোরালেস। রাজনীতিতে পূর্ব-অভিজ্ঞতা ছাড়াই গেল অক্টোবরে দেশটির নির্বাচনে তিনি জয়ী হন। প্রেসিডেন্ট হিসেবে অভিষেক অনুষ্ঠানে মোরালেস দুর্নীতির বিরুদ্ধে লড়াইয়ের অঙ্গীকার ঘোষণা করেছেন।

আজ শুক্রবার মোরালেসের অভিষেক অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন মার্কিন ভাইস-প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। ৩০ বছরের মধ্যে প্রথমবারের মতো যুক্তরাষ্ট্রের শীর্ষপর্যায়ের কোনো নেতা গুয়াতেমালার প্রেসিডেন্টের অভিষেক অনুষ্ঠানে যোগ দিলেন বলে জানিয়েছে বিবিসি। অনুষ্ঠানে দেওয়া দীর্ঘ বক্তব্যে মোরালেস দুর্নীতিবিরোধী আন্দোলনের প্রশংসা করে দেশটিতে ‘নবজাগরণ’ ঘটতে যাচ্ছে বলে মন্তব্য করেছেন। স্বাস্থ্য ও শিক্ষা খাতে ব্যয়ের অঙ্গীকার করে সবার সহায়তা কামনা করেছেন তিনি।

মোরালেস বলেন, ‘আমি সবার জন্য মানসম্মত শিক্ষা চাই যা আধুনিক প্রাযুক্তিক বিশ্বের জন্য আমাদের শিশুদের প্রস্তুত করে তুলবে।’ অবশ্য মোরালেসের বিরোধীরা সমালোচনা করে বলেছেন, দুর্নীতির বিরুদ্ধে কীভাবে লড়াইটা চালাবেন কিংবা গুয়াতেমালার উচ্চমাত্রার সহিংসতা, দারিদ্র্য ও সামাজিক অসাম্য রোধে কী ব্যবস্থা নেবেন, সে সম্পর্কে খুব কম ইঙ্গিত দিয়েছেন তিনি।

দ্বিতীয় দফা নির্বাচনে রাজনীতি ও সরকারের কর্মকাণ্ডে অনভিজ্ঞ একজন কৌতুক অভিনেতার জয়ী হওয়া দেশটির অভিজাত রাজনৈতিক শ্রেণির প্রতি মানুষের অনাস্থার বহিঃপ্রকাশ বলে মনে করছেন বিশ্লেষকরা।

এর আগে নির্বাচনে জয়ী হওয়ার পর মোরালেস বলেছিলেন, দুর্নীতির বিরুদ্ধে লড়াই করার জন্য প্রেসিডেন্ট হিসেবে তিনি গুয়াতেমালার জনগণের ম্যান্ডেট পেয়েছেন। আর তাঁর প্রতি অর্পিত দায়িত্ব তিনি অক্ষরে অক্ষরে পালন করতে বদ্ধপরিকর।

গত বছরের সেপ্টেম্বরে দেশটির সাবেক প্রেসিডেন্ট পিরেজ মলিনাকে অভিশংসন করার পর একই মাসে তাঁকে গ্রেপ্তার করা হয়। তিনি এখন কারাগারে বিচারের অপেক্ষায় আছেন।