Beta

ভারতে এখন থেকে এক দেশ, এক দল?

১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ২১:১২

অনলাইন ডেস্ক

এক দেশ, এক ভাষার পর এবার কি তাহলে এক দেশ, এক দল চায় বিজেপি? ভারতীয় গণতন্ত্রের বহুদলীয় সংসদীয় কাঠামো নিয়ে এবার প্রশ্ন তুললেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ।

সম্প্রতি দেশের অভিন্ন ভাষা হিসেবে হিন্দির পক্ষে প্রস্তাব করেছিলেন অমিত। আর গত মঙ্গলবার দিল্লিতে ‘অল ইন্ডিয়া ম্যানেজমেন্ট অ্যাসোসিয়েশন’-এর অনুষ্ঠানের মঞ্চে ‘নতুন ভারত, মহান ভারত’ বিষয়ে বক্তব্য দেওয়ার সময় অমিত বলেন, ‘স্বাধীনতার ৭০ বছর পর মানুষের মনে প্রশ্ন জেগেছে, বহুদলীয় সংসদীয় ব্যবস্থা আসলে ব্যর্থ কি না? ওই ব্যবস্থা কি দেশবাসীর লক্ষ্য পূরণ করতে পেরেছে?’

তারপর নিজেই জবাব দিয়ে অমিত বলেন, ‘ভারতীয় গণতন্ত্রের বহুদলীয় সংসদীয় কাঠামো নিয়ে মানুষ আশাহত। আঞ্চলিক দলগুলো আঞ্চলিক আকাঙ্ক্ষা পূরণ করতে পারেনি।’

সংবাদমাধ্যম টেলিগ্রাফ এক প্রতিবেদনে জানায়, অমিত বলেন, ‘অভিন্ন দৃষ্টিভঙ্গি, দৃঢ় নেতৃত্ব ও দক্ষ পরিকল্পনার সঙ্গে ১৩০ কোটি মানুষকে একাত্ম করলে তবেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির নতুন ভারতের লক্ষ্য পূরণ সম্ভব। নীতির ভিন্নতায় সে লক্ষ্য পূরণ অসম্ভব।’

এদিকে অমিতের মন্তব্যের তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছে বিরোধী দল কংগ্রেস। অমিতের বক্তব্যের সমালোচনা করে কংগ্রেস জানায়, অমিতের এমন ভাবনা ভারতের রাজনৈতিক কাঠামোর উপরে সরাসরি আক্রমণ।

কংগ্রেসের মুখপাত্র আনন্দ শর্মা টুইটারে লেখেন, ‘বহুদলীয় গণতন্ত্রকে গুরুত্বহীন করে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহর মন্তব্য ভয়াবহ এবং সেটা যে ভাবনার ইঙ্গিত দিচ্ছে। আর তা গৃহীত হলে সেটি ভারতের যুক্ত রাষ্ট্রীয় কাঠামোকে সরাসরি আঘাত করবে।’

তিনি আরো লেখেন, ‘এমন মন্তব্য গ্রহণযোগ্য নয়। এনডিএ নিজেই তো একাধিক দল নিয়ে তৈরি এবং সেই সব দল বিভিন্ন রাজ্যে সরকারও গড়েছে।’

Advertisement