Beta

২ সপ্তাহ আগের তুলনায় এখন পাক-ভারত ‘উত্তেজনা কম’ : ট্রাম্প

১০ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১৮:০২

অনলাইন ডেস্ক
মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। ছবি : রয়টার্স

জম্মু ও কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা রদ করে রাজ্যটিকে দুটি কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে ভাগ করার বিষয়ে মোদি সরকার ঘোষণা দেওয়ার পরেই উত্তপ্ত হয়ে ওঠে ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে পারস্পরিক সম্পর্ক। তবে গত দুই সপ্তাহ আগের তুলনায় ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে জম্মু ও কাশ্মীর নিয়ে এখন ‘উত্তেজনা কম’, এমনটাই মনে করেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।

পাশাপাশি ট্রাম্প বলেন, দক্ষিণ এশিয়ার এই দুই প্রতিবেশী দেশ চাইলে তাদের এ ব্যাপারে সাহায্য করতে প্রস্তুত মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র।

সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি এক প্রতিবেদনে জানায়, ২৬ অগাস্ট ফ্রান্সে জি সেভেন সম্মেলন চলাকালীন ভারতের প্রধানমন্ত্রী মোদির সঙ্গে বৈঠকের দুই সপ্তাহ পর এ কথা বললেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প। ওই বৈঠকে জম্মু ও কাশ্মীর বিষয়ে আলোচনা হয় দুই দেশের রাষ্ট্রনেতার মধ্যে।

ট্রাম্প সোমবার হোয়াইট হাউসে সাংবাদিকদের উদ্দেশে বলেন, ‘আপনারা জানেন যে কাশ্মীর নিয়ে ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে দ্বন্দ্ব চলছে। তবে আমি মনে করি দুই সপ্তাহ আগে যা ছিল তার চেয়ে এখন খানিকটা উত্তেজনা কমে এসেছে দুই দেশের মধ্যে।’

ভারতীয় সংবিধানের ৩৭০ অনুচ্ছেদ বাতিল করে নয়াদিল্লি জম্মু ও কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা রদ করার পরেই দুই প্রতিবেশীর মধ্যে উত্তেজনা বেড়ে যায়।

ট্রাম্পকে ভারত-পাকিস্তানের পরিস্থিতি সম্পর্কে তাঁর মূল্যায়নের বিষয়ে প্রশ্ন করা হলে জবাবে তিনি বলেন, ‘আমার দুই দেশের সঙ্গেই খুব ভাল সম্পর্ক রয়েছে। যদি দুই দেশই চায় তবে আমি তাঁদের এ বিষয়ে সহায়তা করতে রাজি আছি। তাঁরাও এটা জানে। এটাই প্রস্তাব দিয়েছি।’

গত জুলাই মাসে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের সঙ্গে বৈঠককালে ট্রাম্প কাশ্মীর ইস্যুতে দুদেশের মধ্যে মধ্যস্থতার প্রস্তাব দিয়েছিলেন। কিন্তু ভারত সেই প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করে বলেছিল, কাশ্মীর ইস্যু পুরোপুরিই দ্বিপক্ষিয় বিষয়। পাশাপাশি ট্রাম্পের দাবি প্রত্যাখ্যান করে ভারতের তরফ থেকে স্পষ্ট জানানো হয়, নরেন্দ্র মোদি তাঁকে মধ্যস্থতা করার কোনো প্রস্তাব দেননি।

Advertisement