Beta

‘আজ সকাল ১০টায় আমার মৃত্যু হয়েছে, তাই আধা বেলা ছুটি দিন’

০২ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ২০:০১

অনলাইন ডেস্ক

স্কুল জীবন মানেই শিক্ষকের কড়া অনুশাসনের মধ্যে বেড়ে উঠা। কিন্তু তারপরও কিছু দুষ্ট শিক্ষার্থী থাকে যারা সেই কড়া অনুশাসনের দেয়াল টপকে যায়। স্কুল ফাঁকি দেয়। কখনো কখনো শিক্ষককে বোকা বানিয়ে বেরিয়ে যায় ক্লাস না করে।

আর ক্লাস ফাঁকি দিতে অনেকে বেঁছে নেয় মিথ্যার আশ্রয়। কিন্তু স্কুল থেকে ছুটি নিতে কতটা মিথ্যা বলা যায় শিক্ষকের কাছে? সে হিসাব হয়তো করেনি এই শিক্ষার্থী।

এমনই এক অদ্ভুত এক ছুটির দরখাস্ত ভাইরাল হয়েছে সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে। নিজের মৃত্যুর কারণ দেখিয়ে টিফিন পিরিয়ডের পর ছুটি চেয়ে প্রধান শিক্ষকের কাছে দরখাস্ত লিখেছে এক শিক্ষার্থী।

ঘটনাটি ঘটেছে ভারতের কানপুরের একটি স্কুলে। এমন অদ্ভুত দরখাস্তটি লিখেছে সেখানকার স্থানীয় একটি বিদ্যালয়ের অষ্টম শ্রেণির এক ছাত্র।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম হিন্দুস্তান টাইমস জানায়, গত ২০ আগস্ট কানপুরের জিটি রোডের একটি বেসরকারি বিদ্যালয়ে এ ব্যতিক্রম ছুটির দরখাস্ত প্রধান শিক্ষকের কাছে জমা দেয় অষ্টম শ্রেণির এক ছাত্র। ছুটির কারণ হিসেবে সে নিজের মৃত্যুর কথা উল্লেখ করে। আর দরখাস্তটি না পড়েই তাতে ছুটি অনুমোদনে সই করে দেন প্রধান শিক্ষক।

দরখাস্তে ওই ছাত্র লিখেছিল, ‘আজ সকাল ১০টায় আমার মৃত্যু হয়েছে। তাই অন্ত্যেষ্টিক্রিয়ায় থাকার জন্য আমাকে অর্ধেক দিন ছুটি দেওয়া হোক।’

দরখাস্তটি সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল। বিষয়টি নিয়ে রসিকতায় মেতেছেন ভারতীয়রা। অনেকে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন, কী করে একজন ছাত্র এমন দরখাস্ত লিখতে পারে আর তা মঞ্জুর হয়!

এ বিষয়ে হিন্দুস্তান টাইমস জানায়, ওই শিক্ষার্থী মূলত দরখাস্তে তার দাদি মারা গেছেন বলে আবেদন করতে চেয়েছিল। কিন্তু ভুল করে ‘আমার দাদিমার মৃত্যুর’ বদলে ‘আমার মৃত্যুর জন্য’ লিখে ফেলে সে।

Advertisement