পুরুষদের হারিয়ে বিশ্বের প্রথম হিজাবি কুস্তি চ্যাম্পিয়ন মালয়েশিয়ার ডায়ানা

৩১ জুলাই ২০১৯, ০৮:০৪ | আপডেট: ৩১ জুলাই ২০১৯, ০৮:০৫

পৃথিবীর প্রথম হিজাবি কুস্তিগীরের নাম ডায়ানা। জন্ম হয়েছিল মালয়েশিয়ার এক মুসলিম পরিবারে। ছোটবেলা থেকেই ভিডিও গেমের দারুণ ভক্ত ছিলেন ডায়ানা। আর এই ভিডিও গেম থেকেই উৎসাহিত হয়ে কুস্তির দুনিয়ায় পা রেখেছিলেন ডায়ানা।

ডায়ানা কুস্তি শুরু করেছেন মাত্র তিন বছর আগে, কিন্তু এরই মধ্যে তাঁর পারফরম্যান্স সবার নজর কেড়েছে। চলতি বছরের ৬ জুলাই অনুষ্ঠিত ‘মালয়েশিয়া প্রো রেসলিং’ প্রতিযোগিতায় তিনিই প্রথম নারী ‘রেসেলকন চ্যাম্পিয়ন’। ‘রেসেলকন চ্যাম্পিয়ন’ খেতাবটি এতদিন শুধুমাত্র পুরুষ কুস্তিগীরদের ভাগ্যেই জুটত। কিন্তু ডায়ানা যে গ্রিক আর চৈনিক পুরানে প্রচলিত অবিনশ্বর, অমরত্বের প্রতীক সেই আগুনপাখি ফিনিক্স। যে পাখি আগুনে পুড়েও ছাই থেকে পুনর্জন্ম নিয়েছিল, যে পাখিকে কোনো বিপদই টলাতে পারেনি। সিদ্ধান্তে অবিচল, লড়াকু ডায়না স্রোতের বিপরীতে ছুটে গিয়ে ছিনিয়ে নিয়েছেন নারীদের ব্রাত্য এই খেতাব। ‘রেসেলকন চ্যাম্পিয়ন’ হওয়ার পথে ডায়ানা হারিয়েছেন চারজন পুরুষ প্রতিদ্বন্দ্বীকে।

ডায়ানার ‘রিং নাম’ ফিনিক্স। কুস্তি শুরুর প্রথমদিকে মুখে ‘মাস্ক’ পরে রিংয়ের ভেতর ঢুকতেন তিনি। কিন্তু ২০১৮ থেকেই মাথায় হিজাব পরে রিংয়ে আসতে শুরু করেন ডায়ানা। যদিও প্রথম দিকে মাথায় হিজাব পরে রিংয়ে নামা নিয়ে অনেক সমালোচনার মুখে পড়তে হয়েছে তাঁকে। কিন্তু সেই সমালোচনা আজ শুধু গর্বের বিষয়। সমালোচনা করা সেই মানুষগুলোর কাছ থেকেই পেয়েছেন শুভেচ্ছা বার্তা।