বাংলাদেশ প্রসঙ্গে মিশেল ব্যাচেলেট

মতপ্রকাশের স্বাধীনতা নিশ্চিত করতে আরো উদ্যোগী হতে হবে

১১ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১২:০৬ | আপডেট: ১১ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১২:১৩

অনলাইন ডেস্ক
জাতিসংঘের মানবাধিকারবিষয়ক হাইকমিশনার মিশেল ব্যাচেলেট। ছবি : রয়টার্স

বাংলাদেশে মতপ্রকাশের স্বাধীনতা নিশ্চিত করতে সরকারকে আরো উদ্যোগী হতে বলেছেন জাতিসংঘের মানবাধিকারবিষয়ক হাইকমিশনার মিশেল ব্যাচেলেট। স্থানীয় সময় গতকাল সোমবার জাতিসংঘের মানবাধিকার পরিষদের ৩৯তম অধিবেশনের উদ্বোধনী বক্তব্যে বাংলাদেশ প্রসঙ্গে তিনি এ কথা বলেন। ব্যাচেলেট বলেন, অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচনের জন্য মতপ্রকাশের স্বাধীনতা অপরিহার্য।

মানবাধিকারবিষয়ক হাইকমিশনার আরো বলেন, সম্প্রতি বাংলাদেশে বিক্ষোভরত শিক্ষার্থী ও সাংবাদিকদের ওপর হামলা, গ্রেপ্তার, মানহানির ও দুর্ব্যবহারের অভিযোগ রয়েছে। এসব সহিংসতার পুনরাবৃত্তি বন্ধে দায়ী ব্যক্তিদের বিচারের আওতায় আনারও দাবি জানান ব্যাচেলেট। তিনি বলেন, মাদকবিরোধী অভিযানে ২২০ জনের বেশি নিহত হয়েছে বলে সংবাদ প্রকাশিত হয়েছে। এ ছাড়া হাজারো মানুষকে গ্রেপ্তার এবং বিচারবহির্ভূত হত্যার অভিযোগ রয়েছে।

অধিবেশনে মিয়ানমারের রাখাইনে সংখ্যালঘু রোহিঙ্গাদের ওপর নিপীড়নের বিচারের জন্য নতুন একটি বিচারিক ব্যবস্থা গড়ে তোলারও আহ্বান জানান জাতিসংঘের মানবাধিকারবিষয়ক প্রধান। এ নিয়ে একটি প্রস্তাব পাসের জন্য তিনি জাতিসংঘের মানবাধিকার পরিষদকে অনুরোধ করেছেন। ১ সেপ্টেম্বর দায়িত্ব নেওয়ার পর জাতিসংঘের মানবাধিকার পরিষদের অধিবেশনে এটি ব্যাচেলেটের প্রথম বক্তৃতা।

মিশেল ব্যাচেলেট বলেন, ‘মিয়ানমারের জন্য স্বতন্ত্রভাবে একটি আন্তর্জাতিক কৌশল প্রতিষ্ঠা খুবই জরুরি। এই কৌশল রাখাইনে সংগঠিত সবচেয়ে গুরুতর অপরাধের আলামত সংগ্রহ, একত্রীকরণ, সংরক্ষণ ও বিশ্লেষণের কাজ করবে। মানবাধিকার কাউন্সিলের সদস্য রাষ্ট্রগুলোর প্রতি আমার অনুরোধ থাকবে, জাতীয় ও আন্তর্জাতিক আদালতগুলোতে স্বচ্ছ ও স্বাধীন বিচার প্রক্রিয়া প্রবর্তন করতে এমন প্রচেষ্টায় আপনাদের সমর্থন করবেন। এ ধরনের কৌশল প্রতিষ্ঠা করতে একটি প্রস্তাব পাসের জন্য এবং তা অনুমোদনের জন্য আমি মানবাধিকার পরিষদকে আহ্বান জানাই।’