Beta

হারিয়ে যাওয়া শিশুকে আগলে রেখেছিল কুকুরটি

২১ এপ্রিল ২০১৮, ১৮:২১ | আপডেট: ২৩ এপ্রিল ২০১৮, ১২:৫৭

অনলাইন ডেস্ক
সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে কুইন্সল্যান্ড পুলিশের শেয়ার করা ম্যাক্সের ছবি। ছবি : সংগৃহীত

কুকুরের প্রভুভক্তি নিয়ে বহু ঘটনা প্রচলিত আছে। এবার সেই তালিকায় নাম লেখালো ১৭ বছর বয়সী কুকুর ‘ম্যাক্স’।

যদিও বয়স হয়ে যাওয়ার কারণে ম্যাক্স কানে কম শোনে সেইসঙ্গে চোখেও কিছুটা কম দেখে।

কিন্তু তাতে কী? নিজের নানা অক্ষমতা সত্বেও হারিয়ে যাওয়া একটি তিন বছরের শিশু অরোরাকে রক্ষা করেছে সে। আর এই ঘটনাটি ঘটেছে অস্ট্রেলিয়ার কুইন্সল্যান্ড বাশল্যান্ড এলাকায়।

এবিসি নিউজ জানিয়েছে, গতকাল শুক্রবার স্থানীয় সময় বিকেল তিনটার দিকে বাড়ি থেকে বেরিয়ে হারিয়ে যায়  অরোরা। সঙ্গে ছিল দীর্ঘদিনের সঙ্গী ম্যাক্স। পরে আজ শনিবার সকাল আটটার দিকে তাকে পাওয়া যায় ম্যাক্সের সঙ্গে। এসময় ছোটখাটো কাটা ছেঁড়া ছাড়া অরোরা ছিল পুরোপুরি সুস্থ-স্বাভাবিক। অর্থাৎ প্রায় ১৫ ঘণ্টা ঠাণ্ডা এবং বৃষ্টির রাতে আরোরাকে আগলে রেখেছিল ম্যাক্স।

শিশু অরোরার বাড়ি একটি পাহাড়ি এলাকায়। সেখান থেকে ম্যাক্সকে সঙ্গে নিয়ে অনেকদূর পর্যন্ত চলে এসেছিল সে। এই পুরো পথে যে কোনো বিপদ-আপদ হতে পারতো। তবে সেসব থেকে তাকে বাঁচিয়েছে ম্যাক্স।

কুইন্সল্যান্ডের এক পুলিশ কর্মকর্তা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বিষয়টি পোস্ট করে বলেন, ‘খুবই ভালো ছেলে ম্যাক্স। আমরা যখন হারিয়ে যাওয়া বাচ্চাটিকে পাগলের মতো খুঁজছিলাম, সে তখন বাচ্চাটির পাশেই ছিল।’ এই পোস্টটিতে ২৮ হাজারের বেশি মানুষ লাইক দিয়েছেন।

অরোরার দাদীর সঙ্গী কেলি বেনসটন বলেন,‘অরোরাকে খুঁজতে গিয়ে তার পরিবার আগে ম্যাক্সকে খুঁজে পায়। এরপর ম্যাক্সই তাদেরকে বাচ্চাটির কাছে নিয়ে যায়।’

আর এই ভালো কাজের জন্যে কুইন্সল্যান্ড পুলিশের পক্ষ থেকে ম্যাক্সকে সম্মানিত পুলিশ কুকুর খেতাব দেওয়া হয়েছে। সেই সঙ্গে ম্যাক্স পেল প্রচুর মানুষের ভালোবাসা, সম্মান আর উচ্ছ্বসিত প্রশংসা।

ইউটিউবে এনটিভির জনপ্রিয় সব নাটক দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Advertisement