Beta

রাশিয়ার পাল্টা জবাব

মস্কো থেকে ৬০ মার্কিন কূটনীতিক বহিষ্কার, কনস্যুলেট বন্ধ

৩০ মার্চ ২০১৮, ০৯:০৫ | আপডেট: ৩০ মার্চ ২০১৮, ১০:৩৬

নিজস্ব প্রতিবেদক

মস্কো থেকে যুক্তরাষ্ট্রের ৬০ কূটনীতিককে বহিষ্কার করে পাল্টা ব্যবস্থা নিয়েছে রাশিয়া। একই সঙ্গে সেন্ট পিটার্সবুর্গের মার্কিন কনস্যুলেট বন্ধ করে দেওয়ারও নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

মস্কোতে এক সংবাদ সম্মেলনে রুশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই লাভরভ এই ঘোষণা দেন।

সের্গেই লাভরভ বলেন, রাশিয়ার কূটনীতিকদের বহিষ্কারের পাল্টা জবাব হিসেবে মস্কো এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে। তিনি আরো বলেন, তারা মার্কিন রাষ্ট্রদূত জন হান্টসম্যানকে ডেকে পাঠিয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের মতো ব্রিটেন ও তাদের মিত্র ২৮ রাষ্ট্রের সমান সংখ্যক কূটনীতিকদের রাশিয়া ফেডারেশন ছাড়তে হবে।

গত ৪ মার্চ ব্রিটেনের সলসবেরির উইল্টশায়ারে একটি পার্কের বেঞ্চ থেকে সংজ্ঞাহীন অবস্থায় সাবেক রুশ গোয়েন্দা কর্মকর্তা সের্গেই স্ক্রিপাল ও তাঁর মেয়েকে উদ্ধার করা হয়। ধারণা করা হয়, তাঁদের বিষ প্রয়োগে হত্যার চেষ্টা করা হয়েছে।

এ ঘটনায় রাশিয়ার হাত রয়েছে বলে গত সপ্তাহে ইউরোপীয় ইউনিয়নের নেতারা একমত হন। তবে এতে জড়িত থাকার কথা অস্বীকার করেছে রাশিয়া।

এর জের ধরে গত সোমবার মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ৬০ রুশ কূটনীতিককে বহিষ্কার করেন। একসঙ্গে সিয়াটলের রুশ কনস্যুলেট বন্ধ করে দেওয়া হয়। এর জবাবেই রাশিয়া এ সিদ্ধান্ত নিল।

এদিকে, পাল্টা ব্যবস্থা হিসেবে কূটনীতিক বহিষ্কারের বিষয়ে মার্কিন স্টেট ডিপার্টমেন্টের মুখপাত্র হিদার নুয়ার্ট যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করে বলেন, এটা পরিষ্কার হলো রাশিয়া ফেডারেশন আলোচনার মাধ্যমে সংকট নিরসনে আগ্রহী নয়।

মুখপাত্র আরো বলেন, মার্কিন কূটনীতিকদের বহিষ্কারের কোনো যৌক্তিকতা নেই। আর ২৮টি মার্কিন মিত্র রাষ্ট্রের কূটনীতিকদের বহিষ্কারের ঘটনাও অন্যায্য।

ইউটিউবে এনটিভির জনপ্রিয় সব নাটক দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Advertisement