Beta

বাংলাদেশের জিততে চাই ১৪৫ রান

১৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ২০:০০ | আপডেট: ১৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ২১:৪১

ক্রীড়া প্রতিবেদক

বিরুপ আবহাওয়া কাজে লাগাতে টস জিতে আগে বোলিং নেন বাংলাদেশ অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। অধিনায়কের সিদ্ধান্ত ভেস্তে যায়নি। বল হাতে অধিনায়কের আস্থা রেখেছেন তাইজুল-মুস্তাফিজরা। ফিল্ডিংয়েও প্রতিপক্ষকে ছাড় দেয়নি স্বাগতিকরা। তবে শেষের দিকের রায়ান বার্লের ব্যাটে চড়ে ত্রিদেশীয় সিরিজের প্রথম ম্যাচে ৫ উইকেটে ১৪৪ রান সংগ্রহ করে জিম্বাবুয়ে। ব্যর্থতার বৃত্ত ভেঙে জয়ে ফিরতে বাংলাদেশের চাই ১৪৫ রান।

আজ শুক্রবার সকাল থেকে বৃষ্টিতে আচ্ছন্ন ছিল রাজধানী। তাতে নির্ধারিত সময়ে মাঠে গড়ায়নি বাংলাদেশ বনাম জিম্বাবুয়ের মধ্যেকার ম্যাচটি। পর পর দুইবার মাঠ পরিদর্শনের পর রাত আটটায় ম্যাচটি মাঠে গড়ায়। ম্যাচের দৈর্ঘ্য নেমে আসে ১৮ ওভারে।   

বৃষ্টি বিঘ্নিত ম্যাচটির শুরু থেকে বল হাতে দাপট দেখিয়েছেন বাংলাদেশি বোলাররা। দ্বিতীয় ওভারেরই বাংলাদেশকে সাফল্য এনে দেন অভিষেক হওয়া তাইজুল ইসলাম। ফিরিয়ে দিলেন প্রস্তুতি ম্যাচে অপরাজিত ফিফটি করা ব্রেন্ডন টেইলরকে। যার মাধ্যমে প্রথম বাংলাদেশি ও বিশ্বের ১৬তম বোলার হিসেবে অভিষেকের প্রথম বলে উইকেট নেওয়ার কীর্তি গড়েন তাইজুল। 

ষষ্ঠ ওভারে আঘাত হানেন মুস্তাফিজুর রহমান। মোসাদ্দেকের হাতে ক্যাচ দিয়ে সাজঘরে ফেরান ক্রেইগ আরভিনকে। ফেরার আগে ১১ রান করেন এই টপ ওর্ডার। এরপর একে একে জিম্বাবুয়ে শিবিরে আঘাত হানেন সাইফউদ্দিন ও মোসাদ্দেকরা। তাতে ৬৩ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে ফেলে অথিতিরা।

দ্রুত উইকেট হারিয়ে চাপে পড়া জিম্বাবুয়ের হয়ে হাল ধরেন রায়ান বার্ল। ১৬তম ওভারে বাংলাদেশি অধিনায়ক সাকিবের উপর ঝড় তোলেন তিনি। ১৬ তম ওভারে সাকিবকে এক ওভারের তিনটি চার ও তিনটি ছয় হাঁকান এই ব্যাটসম্যান। তুলে নেন টি-টোয়েন্টি ক্যারিয়ারের প্রথম হাফ-সেঞ্চুরি। তাঁর ব্যাটে ভর করে নির্ধারিত ওভারে ৫ উইকেটে ১৪৪ রান সংগ্রহ করে জিম্বাবুয়ে। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৩২ বলে ৫৭ রান করেন বার্ল। ৩৪ রান করেন অধিনায়ক মাসাকাদজা। আর ২৬ বলে মাতুমবোডজি করেন ২৭ রান।

বাংলাদেশের হয়ে বল হাতে ৪৯ রান দিয়ে উইকেট শূন্য ছিলেন সাকিব আল হাসান। সমান একটি করে মুস্তাফিজুর রহমান, তাইজুল ইসলাম, সাইফউদ্দিন ও মোসাদ্দেক হোসেন।

এর মাঝে জিম্বাবুয়ে ইনিংসের ১৭তম ওভার শেষ হওয়ার পরপরই হঠাৎ করে নিভে যায় মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামের সব ফ্লাডলাইট। আট মিনিট পর খেলা পুনরায় মাঠে গড়ায়।

বাংলাদেশে দল : সাকিব আল হাসান (অধিনায়ক), লিটন দাস, সৌম্য সরকার, মুশফিকুর রহিম, মাহমুদউল্লাহ, আফিফ হোসেন, মোসাদ্দেক হোসেন, সাব্বির রহমান, তাইজুল ইসলাম, মেহেদী হাসান, মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন, মোস্তাফিজুর রহমান, ইয়াসিন আরাফাত।

জিম্বাবুয়ে দল : হ্যামিল্টন মাসাকাদজা, রায়ান বার্ল, রেগিস চাকাভা, ক্রেইগ আরভিন, কাইল জার্ভিস, নেভিল ম্যাডজিভা, টাইমসেন মারনুমা, ক্রিস এম্পোফু, টনি মানিয়োঙ্গা, টিনেওটেন্ডা মাতুমবোডজি, রিচমন্ড মাতুমবামি, আইন্সলে এনডোভু।

Advertisement