Beta

আতঙ্কিত ক্রিকেটাররা দ্রুত দেশে ফিরতে চান

১৫ মার্চ ২০১৯, ১১:৩৯ | আপডেট: ১৫ মার্চ ২০১৯, ১১:৫৬

স্পোর্টস ডেস্ক

ক্রাইস্টচার্চে জুমার নামাজ আদায় করতে ভয়াবহ অভিজ্ঞতার মুখোমুখি হওয়া বাংলাদেশ দলের ক্রিকেটাররা দ্রুত দেশে ফিরে আসতে চান। আজ শুক্রবার ওই মসজিদে জুমার নামাজে বন্দুকধারীর হামলায় এখন পর্যন্ত ২৭ জন নিহত হয়েছে। ঘটনাস্থলে উপস্থিত ক্রিকেটাররা খুব স্বাভাবিকভাবেই আতঙ্কিত হয়ে পড়েছেন। নিজেদের নিরাপত্তার কথা ভেবে আর নিউজিল্যান্ডে থাকতে চান না তাঁরা। আজ নিউজিল্যান্ডের স্থানীয় সময় দুপুর পৌনে ২টায় ক্রাইস্টচার্চের মসজিদ আল নুরে এই সন্ত্রাসী হামলার ঘটনা ঘটে। 

বাংলাদেশ দলের ক্রিকেটাররা সেই মসজিদে প্রবেশের মুহূর্তে স্থানীয় এক পথচারী নারীর মাধ্যমে হামলার ঘটনা জানতে পেরে আতঙ্কিত হয়ে দৌড়ে টিম বাসের মধ্যে ঢুকে যান এবং মেঝেতে শুয়ে পড়েন। আপাতত তাঁরা হ্যাগলি ওভাল স্টেডিয়ামে অবস্থান করছেন। তবে খুব কাছ থেকে এমন মারাত্মক ঘটনার সাক্ষী হয়ে ক্রিকেটাররা সবাই মানসিকভাবে বিপর্যস্ত হয়েছেন। দেশে তাঁদের পরিবার-পরিজনও উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েছেন।

নিউজিল্যান্ডের স্থানীয় সংবাদমাধ্যমগুলো জানাচ্ছে, ভয়াবহ সন্ত্রাসী কার্যকলাপে ভীষণ ভয় পেয়েছেন টাইগাররা। দ্রুত দেশে ফিরতে চাচ্ছেন তাঁরা। ক্রিকেটবিষয়ক জনপ্রিয় ওয়েবসাইট ইএসপিএন-ক্রিকইনফোর বাংলাদেশ প্রতিনিধি মোহাম্মদ ইসাম ঘটনাস্থলে দলের সঙ্গেই ছিলেন। তিনি নিজেই এ খবর জানিয়েছেন।

মোহাম্মদ ইসাম বলেন, ‘আমি ঘটনাস্থলে ছিলাম। সব খেলোয়াড় নিরাপদে আছেন। তবে তাঁরা দেশে ফিরে যেতে চান।’

তিনি বলেন, ‘আমি মনে করি না, বাংলাদেশ ক্রিকেটাররা খেলার মতো মানসিক অবস্থায় আছেন। তাঁরা শিগগির দেশে ফিরতে চান। আমার অভিজ্ঞতা থেকেই বলছি।’

ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে দুই বোর্ডের সিদ্ধান্তে এরই মধ্যে তৃতীয় টেস্টটি বাতিল করা হয়েছে। ক্রিকেটারদেরও দ্রুত দেশে ফিরিয়ে আনার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। 

Advertisement