Beta

ব্রাজিলের টিভিতে বাংলাদেশের বিশ্বকাপ উন্মাদনা!

১১ জুলাই ২০১৮, ১৩:০০

স্পোর্টস ডেস্ক

বাংলাদেশের ফুটবল উন্মাদনা এত দিন শুধু এশিয়ার মধ্যেই ঘুরপাক খেয়েছে। কিন্তু তথ্যপ্রযুক্তির এই সহজলভ্যতার যুগে অবশ্যই এই উত্তেজনা ছড়িয়ে যাওয়া আশ্চর্যজনক কোনো ব্যাপার নয়। সে জন্যই তো ব্রাজিলের গ্লোবো স্পোর টিভির  সাংবাদিকরা বিশ্বকাপ শুরুর সময়েই ছুটে এসেছিলেন বাংলাদেশে যেন এ দেশের  উন্মাদনার কিছু অংশ পৌঁছে দিতে পারেন সমগ্র পৃথিবীতে। সত্যিকার অর্থেই তারা তাদের প্রতিবেদনটিতে বিশ্বকাপকালীন বাংলাদেশকে খুব ভালোভাবে ফুটিয়ে তুলেছে। এ ছাড়া এতে উঠে এসেছে বাঙালি সংস্কৃতি ও দেশের স্বাধীনতা সংগ্রাম। 

পাড়ার মুদি দোকান থেকে শুরু করে বাড়িঘর, যানবাহন, মাঠঘাট সব; কোথায় নেই এই উন্মাদনা। সবটাই প্রকাশ পেয়েছে পৃথিবীর কাছে। সবচেয়ে বেশি প্রকাশ পেয়েছে আমাদের ব্রাজিল-আর্জেন্টিনা প্রীতি এবং এ দুই দলের প্রতি সমর্থন। প্রকাশ পেয়েছে এ দুই দল নিয়ে আমাদের হাসি-কান্না, আমাদের খুনসুটি। বিশ্ববাসী দেখতে পাচ্ছে যে একটি দেশ বিশ্বকাপে এখন পর্যন্ত একবারও অংশগ্রহণ না করতে পেরেও কীভাবে ফুটবলকে বাঁচিয়ে রেখেছে নিজেদের আত্মার মাঝে। দেখানো হয়েছে যে এই ফুটবল প্রীতি আজকের নয়, এই আর্জেন্টিনা-ব্রাজিল খুনসুটি এ দেশের ভক্তদের মাঝে সেই কিংবদন্তি ব্রাজিলিয়ান ফুটবলার পেলে ও আর্জেন্টাইন ফুটবল ঈশ্বর ম্যারাডোনা থেকে শুরু হয়ে ঠেকেছে জাদুকর মেসি ও উজ্জ্বল তারকা নেইমারে। এর মাধ্যমে প্রকাশ পায় যে এই উন্মাদনা প্রতি বিশ্বকাপে এভাবেই গোটা দুনিয়ায় বাংলাদেশের উন্মাদনা প্রকাশ করবে।

যদিও এরই মধ্যে এ দেশের মানুষের প্রিয় দুই দল বিশ্বকাপ থেকে বিদায় নিয়েছে, তবুও বিশ্বকাপ উন্মাদনা যেন সামান্য পরিমাণও কমে যায়নি এখান থেকে; বরং চলছে আর্জেন্টিনা- ব্রাজিল সমর্থকদের তীব্র আলোচনা ও খুনসুটি। তাই বলা যেতেই পারে, ফিফা বিশ্বকাপ ‘the biggest show on earth’ এই কথাটির তাৎপর্য বাঙালির বিশ্বকাপ উন্মাদনা দেখলেই বিশ্ববাসী আরো বেশি বুঝতে পারবে।

ইউটিউবে এনটিভির জনপ্রিয় সব নাটক দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Advertisement