Beta

আপনার জিজ্ঞাসা

ফরজ নামাজের পর আয়াতুল কুরসি পড়লে মৃত্যুযন্ত্রণা থেকে রেহাই পাব?

১৪ এপ্রিল ২০১৯, ১৬:১৯

অনলাইন ডেস্ক

নামাজ, রোজা, হজ, জাকাত, পরিবার, সমাজসহ জীবনঘনিষ্ঠ ইসলামবিষয়ক প্রশ্নোত্তর অনুষ্ঠান ‘আপনার জিজ্ঞাসা’। জয়নুল আবেদীন আজাদের উপস্থাপনায় এনটিভির জনপ্রিয় এ অনুষ্ঠানে দ‍র্শকের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেন বিশিষ্ট আলেম ড. মুহাম্মদ সাইফুল্লাহ।

আপনার জিজ্ঞাসার ২২৬৮তম পর্বে প্রত্যেক ফরজ নামাজের পর আয়াতুল কুরসি পাঠ করলে মৃত্যুযন্ত্রণা থেকে রেহাই পাওয়ার যাবে কি না, সে বিষয়ে ময়মনসিংহ থেকে চিঠির মাধ্যমে জানতে চেয়েছেন শামীমা হক। অনুলিখন করেছেন জান্নাত আরা পাপিয়া।

প্রশ্ন : প্রত্যেক ফরজ নামাজের পর আয়াতুল কুরসি পাঠ করা মৃত্যুযন্ত্রণা থেকে রেহাই পাওয়ার উপায়, এ হাদিসটি কি সহিহ? আর কখন পাঠ করতে হবে? ফরজ সালাতের পরপরই, নাকি সুন্নত-নফল-বিতর সব শেষ করার পর?

উত্তর : প্রত্যেক ফরজ সালাতের পর যদি কেউ আয়াতুল কুরসি পাঠ করে থাকে, এর ফজিলত হচ্ছে, সে ব্যক্তি জান্নাতে প্রবেশ করার জন্য মৃত্যু ছাড়া আর কোনো প্রতিবন্ধকতা নেই। তার তখন মৃত্যু হলে সে জান্নাতে যাবে। জান্নাতের এত কাছে সে পৌঁছে যায় যে মৃত্যুর সঙ্গে সঙ্গে জান্নাতে যাবে।

আপনি যে বক্তব্য দিয়েছেন যে, মৃত্যুর যন্ত্রণা থেকে মুক্তির জন্য ফরজ সালাতের পর আয়াতুল কুরসি পাঠের বিধান রয়েছে। না, এই মর্মে রাসুল (সা.)-এর কোনো সহিহ হাদিস সাব্যস্ত হয়নি।

যেহেতু ফরজ সালাতের পরে এটি করতে বলা হয়েছে, সেহেতু ফরজ সালাতের পরেই করতে হবে। ফরজের পরে নফল, সুন্নাত, বিতির সব সালাত শেষ করে নয়, বরং ফরজ সালাত শেষ করেই এই আমল করতে হবে।

আয়াতুল কুরসির বিষয়ে রাসুল (সা.)-এর হাদিস দ্বারা প্রমাণিত হয়েছে, রাসুল (সা.) ফরজ সালাতের পরে যেসব জিকির করতেন, তার মধ্যে একটি হলো আয়াতুল কুরসি পাঠ করা।

Advertisement