Beta

সৌদিতে বাংলাদেশের ওষুধ ও খাদ্যপণ্যের চাহিদা রয়েছে : রাষ্ট্রদূত

০১ অক্টোবর ২০১৯, ২৩:২৭ | আপডেট: ০১ অক্টোবর ২০১৯, ২৩:২৮

সৌদি খাদ্য ও ওষুধ কর্তৃপক্ষের (এসএফডিএ) উদ্যোগে রিয়াদে তিন দিনব্যাপী ওষুধ, চিকিৎসা সরঞ্জামাদি ও খাদ্য পণ্যের মেলা শুরু হয়েছে। সৌদি আরবে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত গোলাম মসীহসহ দূতাবাসের কর্মকর্তারা মেলা পরিদর্শন করেন। ছবি : এনটিভি

সৌদি খাদ্য ও ওষুধ কর্তৃপক্ষের (এসএফডিএ) উদ্যোগে রিয়াদে তিন দিনব্যাপী ওষুধ, চিকিৎসা সরঞ্জামাদি ও খাদ্য পণ্যের মেলা শুরু হয়েছে। সোমবার সকালে রিয়াদের আন্তর্জাতিক কনভেনশন সেন্টারে মেলার উদ্বোধন করেন এসএফডিএর প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ড. হিসাম আল-জাদে।

মেলায় ২০টি দেশের ৮০টি প্রতিষ্ঠান ও স্থানীয় ১২০টি প্রতিষ্ঠানসহ ২০০টির বেশি প্রতিষ্ঠান অংশ নিয়েছে। সৌদি আরবে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত গোলাম মসীহ সকালে মেলা পরিদর্শন করেন। এ সময় তিনি বলেন, সৌদি আরবে বাংলাদেশের ওষুধ ও খাদ্য পণ্যের চাহিদা রয়েছে। সৌদি আরবের সঙ্গে বাংলাদেশের অর্থনৈতিক ও বাণিজ্যিক সম্পর্ক দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে।

রাষ্ট্রদূত আশা প্রকাশ করেন মেলায় অংশগ্রহণের মাধ্যমে সৌদি আরবের বাজারে বাংলাদেশের ওষুধ ও খাদ্য পণ্যের পরিচিতি বৃদ্ধি পাবে। সেই সঙ্গে আগামী দিনে দেশের ওষুধ ও খাদ্যপণ্য রপ্তানি বৃদ্ধির মাধ্যমে বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা বাস্তবায়ন সম্ভব হবে।

গোলাম মসীহ বলেন, সৌদি আরবে বাংলাদেশের তৈরি পোশাকেরও বিপুল চাহিদা রয়েছে, যা দিন দিন আরো বৃদ্ধি পাচ্ছে। তিনি সৌদি আরবে রপ্তানি বৃদ্ধির লক্ষ্যে দূতাবাসের পক্ষ থেকে ব্যবসায়ীদের সব ধরনের সাহায্য সহযোগিতা করা হচ্ছে বলে জানান।

মেলায় প্রদর্শনীর পাশাপাশি বিভিন্ন বিষয়ে সেমিনারেরও আয়োজন করা হয়েছে। মেলা চলবে ২ অক্টোবর পর্যন্ত। বাংলাদেশের ওষুধ কোম্পানি এরিস্টোফার্মা লিমিটেড ও রেডিয়েন্ট নিউট্রাসিটিক্যালস, খাদ্যপণ্য প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান মাসুদ ফিস প্রসেসিং অ্যান্ড আইস কমপ্লেক্স লিমিটেড এবং প্যাসিফিক সি ফুডস লিমিটেড মেলায় অংশগ্রহণ করে।

দূতাবাসের মিনিস্টার এস এম আনিসুল হক, ইকোনমিক মিনিস্টার মো. আবুল হাসান ও প্রথম সচিব (প্রেস) মো. ফখরুল ইসলাম রাষ্ট্রদূতের সঙ্গে মেলা পরিদর্শন করেন।

Advertisement