Beta

দক্ষিণ কোরিয়ায় নোয়াখালী অ্যাসোসিয়েশনের আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত

১৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ২০:৩৩

মনির হোসেন পাটোয়ারী, দক্ষিণ কোরিয়া

দক্ষিণ কোরিয়ায় নোয়াখালী, লক্ষ্মীপুর ও ফেনী অঞ্চলের বাসিন্দাদের নিয়ে গঠিত বৃহত্তর নোয়াখালী অ্যাসোসিয়েশন ইন কোরিয়ার দ্বিবার্ষিক আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়েছে।

গত মাসে অনুষ্ঠিত ওই আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন বৃহত্তর নোয়াখালী অ্যাসোসিয়েশন ইন কোরিয়ার সভাপতি আরিফুর রহমান ইরান। সভা পরিচালনা করেন সাধারণ সম্পাদক  মনির পাটোয়ারী ও সাংগঠনিক সম্পাদক জাহিদ সামিন। প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কোরিয়ার বাংলাদেশ দূতাবাসের কমার্সিয়াল কাউন্সিলর মাসুদ রানা চৌধুরী। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সু উন্নয়ন মাইগগ্র্যান্ট সেন্টারের পরিচালক জন সুন লি।

এ ছাড়া বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কোরিয়ার বাংলাদেশ দূতাবাসের প্রশাসনিক কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর হোসেন ও বৃহত্তর নোয়াখালী অ্যাসোসিয়েশন ইন কোরিয়ার প্রধান উপদেষ্টা কামরুল আলম সোহাগ।

অনুষ্ঠানে আমন্ত্রিত অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বৃহত্তর নোয়াখালী অ্যাসোসিয়েশন  ইন কোরিয়ার বিশেষ উপদেষ্টা মুনীর হোসাইন, বাংলাদেশ কেন্দ্রীয় পরিষদের সভাপতি সৈয়দ কায়সার খসরু, চিটাগাং অ্যাসোসিয়েশন  ইন কোরিয়ার সভাপতি মেক্সিম চৌধুরী, বাংলাদেশ অর্গানাইজেশনের সভাপতি রতন আহম্মদ, আওয়ামী লীগ নেতা লিয়াকত আলী ভুট্টো ও ইপিএস বাংলা কমিউনিটির সাবেক সভাপতি সোহেল রানা।

অনুষ্ঠানে বৃহত্তর নোয়াখালী অ্যাসোসিয়েশন ইন কোরিয়ার দুই বছর পূর্তি উপলক্ষে বিশাল কেক কেটে অ্যাসোসিয়েশনের জন্মদিন উদযাপন করা হয়।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে বাংলাদেশ দূতাবাসের কমার্সিয়াল কাউন্সিলর মাসুদ রানা চৌধুরী বলেন, বাংলাদেশ স্বাধীন হওয়ার পর থেকে ধীরে ধীরে অর্থনৈতিকভাবে অনেক দূর এগিয়েছে। এটা সম্ভব হয়েছে বাংলাদেশের জনগণের প্রচেষ্টা ও শ্রমের বিনিময়ে। প্রবাসী বাংলাদেশিরা দেশের সূর্য সন্তান। প্রবাসী বাংলাদেমিদের কল্যাণে বাংলাদেশ দূতাবাসের আন্তরিক প্রচেষ্টা অব্যাহত থাকবে।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে দক্ষিণ কোরিয়ায় বাংলাদেশ দূতাবাসের প্রশাসনিক কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর হোসেন বলেন, আমাদের সবাইকে স্বাধীন বাংলাদেশের নাগরিক হিসেবে বিদেশের মাটিতে নিজেদের শ্রম ও মেধা দিয়ে দেশের সম্মান উজ্জ্বল করতে হবে। দক্ষিণ কোরিয়া প্রবাসীদের কাছে বিশেষ অনুরোধ থাকবে আপনারা বৈধ পথে রেমিটেন্স পাঠিয়ে দেশের উন্নয়নে সম্পৃক্ত হবেন।

অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন নোয়াখালী অ্যাসোসিয়েশন ইন কোরিয়ার মনীর হোসাইন, সৈয়দ কায়সার খসরু, মেক্সিম চৌধুরী, সোহেল রানা প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে দক্ষিণ কোরিয়ায় বৃহত্তর নোয়াখালী অঞ্চলের ইপিএস ভিসায় আগত নোয়াখালীর গর্বিত সন্তান হিসেবে কোরিয়ায় স্থায়ী রেসিডেন্ট ভিসা পাওয়ায় তাদেরকে সম্মাননা ক্রেস্ট দেওয়া হয়। নোয়াখালীর গর্বিত সন্তান হিসেবে সম্মাননা ক্রেস্ট পেয়েছে ফিরোজ আলম রিপন, মো. সোহেল রানা, মোহাম্মদ রিয়াজ, ফজলুর রহমান, মাহবুব, ফজলুর রহমান মাসুম, আনিসুর রহমান, জাকির হোসেন, সৌরভ হাওলাদার, মাজেদ আহসান ফয়সাল, সোলেমান, সোলাইমান স্বপন, গোলাম সারোয়ার শামীম, নাজিম ও এনামুল করিম মজুমদার।

দক্ষিণ কোরিয়ায় অবস্থানরত বৃহত্তর নোয়াখালী অঞ্চলের সব ভাই ও বোনদের বিভিন্ন সমস্যা সমাধান, সামাজিক ও আঞ্চলিক ঐক্যের পাশাপাশি কৃষ্টি-কালচার প্রবাসের মাটিতে তুলে ধরার লক্ষ্যে ৫১ সদস্য বিশিষ্ট  কমিটি ঘোষণা করা হয়।

বৃহত্তর নোয়াখালী অ্যাসোসিয়েশন ইন কোরিয়া কমিটির সভাপতি আরিফুর রহমান ইরান (লক্ষ্মীপুর), সাধারণ সম্পাদক মনির পাটোয়ারী (নোয়াখালী), প্রধান উপদেষ্টা কামরুল আলম সোহাগ (লক্ষ্মীপুর), উপদেষ্টা মুনীর হোসাইন, উপদেষ্টা জসিম (ফেনী), উপদেষ্টা খান (ফেনী), আবদুর রহিম (লক্ষ্মীপুর), মামুন রশীদ (ফেনী), সাখাওয়াত (ফেনী) ও মোহাম্মদ জলিল (ফেনী),  সিনিয়র সহসভাপতি ফিরোজ আলম রিপন (নোয়াখালী), সহসভাপতি নুরুল আফসার (ফেনী), সহসভাপতি আলমগীর হোসেন আলম (লক্ষীপুর), রিয়াজ (নোয়াখালী), সৈয়দ মোহাম্মদ গোলাম সারোয়ার (লক্ষীপুর), ফিরোজ খান (নোয়াখালী), মাজেদ আহসান ফয়সাল (লক্ষ্মীপুর), মোহাম্মদ সোহেল রানা (নোয়াখালী), ফজলুর রহমান, জাকির, এইচ এম সৌরভ হাওলাদার (লক্ষ্মীপুর) ও  মনোয়ার হোসেন মানিক, যুগ্ম সম্পাদক জাকির হোসেন (লক্ষ্মীপুর), আনিসুর রহমান (নোয়াখালী), এনামুল করিম মজুমদার ও গোলাম সারোয়ার শামীম (ফেনী), সাংগঠনিক সম্পাদক জাহিদ সামিন (লক্ষ্মীপুর), দপ্তর সম্পাদক মাহবুব (নোয়াখালী), সহদপ্তর সম্পাদক সুজন চন্দ্র শীল, প্রচার সম্পাদক হাসান মাহমুদ বাবু (লক্ষ্মীপুর), ক্রীড়া সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম (নোয়াখালী), সহক্রীড়া সম্পাদক তারেক এবং সাহিত্য ও সংস্কৃতি সম্পাদক মোহনসহ (নোয়াখালী) অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন দক্ষিণ কোরিয়ার বিভিন্ন কমিউনিটির নেতৃবৃন্দ, সাংবাদিক, রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দসহ বৃহত্তর নোয়াখালী অঞ্চলের নেতৃবৃন্দ ।

দক্ষিণ কোরিয়ায় অবস্থানরত বৃহত্তর নোয়াখালী অঞ্চলের নেতৃবৃন্দকে ঐক্যবদ্ধ করতে সার্বিকভাবে সহযোগিতা করেছেন আরিফুর রহমান ইরান ফিরোজ আলম রিপন, আলমগীর হোসেন আলম, নুরুল আফসার, সৈয়দ মোহাম্মদ গোলাম সারোয়ার ও মাহবুব।

দক্ষিণ কোরিয়ায় প্রবাসী বাংলাদেশি কণ্ঠ শিল্পী মাহবুব, সৈয়দ কায়সার খসরুসহ অন্যান্য  শিল্পীদের গানে পুরো অনুষ্ঠান প্রাণবন্ত হয়ে ওঠে।

Advertisement