Beta

শিশুদের বৈশাখ

১২ এপ্রিল ২০১৫, ১৬:১২

বৈশাখ উৎসবে বড়দের পাশাপাশি ছোটদেরও উৎসাহের কোনো কমতি থাকে না। নতুন পোশাক, নতুন সাজে রঙিন বৈশাখে তারাও যোগ দেয়। এর সঙ্গে তাল মিলিয়ে প্রতিবারের মতো এবারও নগরীর ফ্যাশন হাউসগুলো শিশুদের বয়স অনুযায়ী পোশাকের পসরা সাজিয়ে বসেছে। মা-বাবার হাত ধরে ছোট ছোট শিশু কিনছে তাদের পছন্দের বৈশাখের পোশাক।

ফ্যাশন হাউস অঞ্জন’স-এর কর্ণধার শাহীন আহমেদ বলেন, ‘নববর্ষে প্রতিবারই শিশুদের জন্য আলাদা ডিজাইনের পোশাক তৈরি করা হয়। এবারের বৈশাখে বড়দের সঙ্গে মিলিয়ে ছোটদের জন্য পোশাক তৈরি করেছি। একই ডিজাইন, একই রং ফুটিয়ে তোলা হয়েছে শিশুদের বৈশাখের পোশাকে।’

শাহীন আহমেদ আরো বলেন, ‘ছোটদের পোশাকের জন্য আমরা সুতি ও লিলেন সুতি কাপড়কে বেছে নিয়েছি। তবে পোশাকে খুব একটা ভারী কাজ করা হয়নি। কারণ, শিশুদের স্বাচ্ছন্দ্যের কথা মাথায় রেখে তাদের জন্য নববর্ষের পোশাক তৈরি করেছি। আর রং হিসেবে সাদা-লালকেই বেশি প্রাধান্য দিয়েছি।’

মেয়েদের জন্য রয়েছে ছোট শাড়ি, সালোয়ার-কামিজ, কুর্তি ও ফতুয়া। সুতি, লিলেন ও সিল্কের কাপড় দিয়ে এসব পোশাক তৈরি করা হয়েছে, যাতে গরমে শিশুদের অস্বস্তি না লাগে। বৈশাখের বিভিন্ন মোটিফ ব্যবহার করে মেয়েদের পোশাকের ডিজাইন করা হয়েছে। ব্লক, স্ক্রিনপ্রিন্ট, এমব্রয়ডারি এবং হাতের কাজ করা হয়েছে। রঙের ক্ষেত্রে বেছে নেওয়া হয়েছে লাল, সাদা, অফহোয়াইট, নীল, সবুজ ও বেগুনিকে।

ছেলেদের জন্য পাঞ্জাবি ও ফতুয়ার ডিজাইনে রয়েছে নতুনত্ব। কাটিং আর কাজে রয়েছে ভিন্নতা। ছেলেদের পোশাকেও ব্লক-বাটিক ও এমব্রয়ডারির কাজ করা হয়েছে। আর রংধনুর সব রং পোশাকের ক্যানভাসে ফুটিয়ে তোলা হয়েছে। সুতি ও হাফসিল্কের কাপড় বেছে নেওয়া হয়েছে ছেলেদের বৈশাখের পোশাকে। 

পোশাকের পাশাপাশি জুতার দিকেও নজর দিন। স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করবে এমন ধরনের জুতা শিশুদের জন্য ভালো। একটু নরম দেখে জুতা কিনুন। আর খুব বেশি কিছু মেয়েশিশুদের না পরানোই ভালো। মেয়েদের চুল ভালো করে বেঁধে দিন। এতে তারা স্বস্তি অনুভব করবে। আর ছেলেদের পাঞ্জাবির সঙ্গে জিন্সের প্যান্ট, পাজামা অথবা গ্যাবার্ডিনের প্যান্ট কিনুন। দেখতে ভালো লাগবে। 

শিশুদের বৈশাখের পোশাক ও জুতা পাওয়া যাবে বিভিন্ন বুটিক হাউসে। আড়ং, অঞ্জন’স, রঙ, বিবিআনা, কে-ক্র্যাফটের মতো দেশীয় হাউসগুলোতে খুঁজে পাবেন ছোটদের নানা ডিজাইনের পোশাক ও জুতা। এ ছাড়া বিভিন্ন শপিংমল ও নিউমার্কেট থেকেও কিনতে পারেন। চাইলে আপনি কাপড় কিনেও পোশাক বানিয়ে নিতে পারেন। তাই দেরি না করে আজই আপনার ছোট্ট সোনামণির জন্য পছন্দ অনুযায়ী জুতা ও পোশাকটি কিনে ফেলুন।

Advertisement