Beta

ঈদে ডায়াবেটিস রোগীরা কি মিষ্টি খেতে পারবেন?

২১ আগস্ট ২০১৮, ১৮:২৩

ফিচার ডেস্ক

সাধারণত ডায়াবেটিস রোগীদের মিষ্টি বা মিষ্টিজাতীয় খাবার খেতে নিষেধ করা হয়। তবে ঈদের সময় কি রোগীরা মিষ্টিজাতীয় খাবার খেতে পারবেন?

এ বিষয়ে এনটিভির নিয়মিত আয়োজন স্বাস্থ্য প্রতিদিন অনুষ্ঠানের ৩১৭৮তম পর্বে কথা বলেছেন ডা. ছামিদুর রহমান। বর্তমানে তিনি স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালের শিশু ও সার্জারি বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক হিসেবে কর্মরত।

প্রশ্ন : ঈদের সময় ডায়াবেটিস রোগীরা কি মিষ্টিজাতীয় খাবার খেতে পারবেন?

উত্তর : ঈদে কেউ একটু ভালো-মন্দ খাবে, এটাই স্বাভাবিক। কিন্তু বিষয়টা হচ্ছে নিজের অবস্থানটাকে বিবেচনা করে খেতে হবে। যেটা হয় বাড়িতে গেলে খুব ঘন ঘন খাবার খাওয়া হয়। একটা ভারী খাবার খেয়েছে। দুই ঘণ্টা পর হয়তো আবার ভারী খাবার খেল, এইটা না করে একটু সময় মেনে খাবার খেতে হয়। একই ধরনের খাবার খাওয়া থেকে বিরত থাকতে হবে। শাকসবজিটা একটু খাওয়া। আমাদের যেটা করতে হবে, যেহেতু ভারী খাবার খেতেই হয়, বিশেষ করে কোরবানির ঈদে, পাশাপাশি আমাদের শাকসবজি খাওয়া, সালাদ খাওয়া, বেশি করে পানি পান করা, এই জিনিসগুলোর অভ্যাস করতে হবে। প্রয়োজনে একটু ইসুবগুলের ভুসি খাওয়া। বাউয়েলটা যদি ঠিকমতো নড়াচড়া করে, তাহলে সমস্যা হয় না। আর যদি কোনো কারণে দেখা যায় যে একটু সমস্যা হচ্ছে, তাহলে একটু বিরতি দিয়ে খেতে হবে। এই বিরতি দিলেই শরীর একে সমন্বয় করে নেয়।

বাচ্চাদের ক্ষেত্রে মায়েদের খেয়াল রাখতে হবে, তারা যেন অস্বাস্থ্যকর কিছু না খায়। আর নতুন কিছু খেলেও যেন বেশি খেয়ে না ফেলে। দুটো জিনিসের দিকে খেয়াল রাখলে আমার মনে হয়, সুস্থ থাকা সম্ভব।

ডায়াবেটিসে আক্রান্ত রোগীরা ঈদের দিন একেবারে মিষ্টি খাবে না, তা নয়। সে অল্প পরিমাণ খাবে, তবে পরে ভাতের পরিমাণটা একটু কম খাবে। শর্করা জাতীয় খাবারের পরিমাণটা কম খাবে। বা ওই দিন একটু খেলেও একটু বেশি হাঁটবে। অথবা কোনো কারণে যদি খাওয়া হয়ে যায়, তাহলে ইনসুলিন হোক বা ট্যাবলেট হোক, একটু বাড়িয়ে নিতে পারে। আমি মনে করি, সামাজিক জীবন থেকে বিচ্ছিন্ন হওয়াটা একেবারে ঠিক নয়। পরিমিত খেলে কোনোটাই কোনো সমস্যা নয়।

ইউটিউবে এনটিভির জনপ্রিয় সব নাটক দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Advertisement