Beta

বারো বছর ধরে গোপনে প্রেম করছেন সাইমন

১৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১৬:০১

ভালোবাসা দিবস শুধু তরুণ-তরুণী নয়, নানা বয়সের মানুষের ভালোবাসার বহুমাত্রিক রূপ প্রকাশের আনুষ্ঠানিক দিন। মা-বাবার প্রতি সন্তানের, তেমনি মানুষে-মানুষে ভালোবাসাবাসির দিনও এটি। বড় পর্দায় অভিনয়ের বাইরে নায়ক-নায়িকারাও মনের ভেতরে ভালোবাসা পুষে রাখেন। তেমনই একজন নায়ক সায়মন। তিনি নাকি বারো বছর ধরে প্রেম করছেন, কিন্তু সেটি জানতে দেননি কাউকে। প্রথমবারের মতো এ নিয়ে তিনি কথা বললেন এনটিভি অনলাইনের সঙ্গে।

প্রশ্ন : ছোটবেলায় প্রেম করেছেন?

সায়মন : আমার আসলে ছোটবেলায় প্রেম করা হয়নি। তবে অনেক মেয়েকে ভালোবেসেছি। দেখা গেল কোনো মেয়েকে মনে মনে ভালোবেসেছি। তার নাম সুপারিগাছে লিখে রাখতাম। যেমন আমার নামের প্রথম অক্ষর এস লিখতাম, প্লাস মেয়েটির নামের প্রথম অক্ষর। এমন অনেক মেয়ের নামের প্রথম অক্ষর আর আমার নামের প্রথম অক্ষরের সঙ্গে লিখেছি। এখনো বাড়ি গেলে গাছগুলো দেখি। যদিও অনেক বড় হয়ে গেছে গাছগুলো। আমাদের সুপারি বাগানে খুঁজে দেখলে অনেক গাছেই এখনো লেখা খুঁজে পাওয়া যাবে।

প্রশ্ন : শুধু নামই লিখেন? প্রেম করা হয়নি?

সায়মন : গাছে নাম লিখেছি, তবে কোনো মেয়েকে সামনাসামনি প্রেমের কথা বলার সাহস পাইনি। দূর থেকেই ভালোবেসেছি। এদের মধ্যে অনেক মেয়েই পরে আমাকে প্রেমের প্রস্তাব দিয়েছিল। তাদের সঙ্গে তখন আর আমার প্রেম করতে ইচ্ছে করেনি। কারণ, আমার সব সময় মনে হতো, প্রেমের জন্য ছেলেরা মেয়েদের অফার করবে। মেয়েরা অফার করবে, এটা আমি মানতে পারিনি। যে মেয়েরা ছেলেদের প্রেমের অফার করে, তাদের আমার কাছে ভালো লাগত না।

প্রশ্ন : তা হলে কি আপনি এখনো প্রেম করছেন না?

সায়মন : একটা প্রেম আমি করছি ১২-১৩ বছর ধরেই। এটা আমার গোপন প্রেম। ঢাকায় আসার পরপরই একটি মেয়েকে আমি ভালোবাসি। আমরা দুজনে চুটিয়ে প্রেম করছি। আমি মেয়েটির নাম বলতে চাই না। তবে এতটুকু বলছি, মেয়েটি মিডিয়ার কেউ নয়। একেবারেই সাধারণ একটি মেয়ে। যখন বিয়ে করব, তখন সবাইকে জানিয়ে ধুমধাম করে বিয়ে করব।

প্রশ্ন : মেয়েটির সঙ্গে ভালোবাসা দিবসে কোনো পরিকল্পনা আছে?

সায়মন : এটা তো বলা যাবে না। যেহেতু বিষয়টি গোপন আছে, তাই যা করি তা গোপনেই করব। দুই পরিবারের জন্য বিষয়টি গোপন রাখতে হচ্ছে। তবে প্রকাশ্যে আসবে। সবাই আমাদের জন্য দোয়া করবেন। আমি আমার কাজকে অনেক ভালোবাসি, আমার কাজের বরাত দিয়ে দর্শক আমাকে ভালোবাসেন। আমি সবার ভালোবাসা নিয়ে জীবন কাটাতে চাই। প্রতিদিন, প্রতি সেকেন্ড আমি ভালোবাসা বিনিময় করতে চাই সবার সঙ্গে।

Advertisement