Beta

টুইঙ্কেলকে তনুশ্রীর খোঁচা : তোমার স্বামী তো তাঁর সঙ্গে কাজ করে!

০১ অক্টোবর ২০১৮, ০০:১৬

অনলাইন ডেস্ক
টুইঙ্কেল খান্না ও তাঁর স্বামী অক্ষয় কুমার এবং তনুশ্রী দত্ত। ছবি : সংগৃহীত

নানা পাটেকারের বিরুদ্ধে যখন তনুশ্রী দত্ত যৌন নিপীড়নের অভিযোগ আনলেন, তখন তাঁর পাশে দাঁড়িয়েছিলেন টুইঙ্কেল খান্না। বলেছিলেন, ‘সাহসী নারী’। নানার বিরুদ্ধে মুখ খোলায় তনুশ্রীর প্রশংসা করেছিলেন টুইঙ্কেল। আর উত্তরে তনুশ্রীই কি না খোঁচা দিলেন তাঁকে!

গত সপ্তাহে ‘আশিক বানায়া আপনে’ খ্যাত বলিউড অভিনেত্রী তনুশ্রী দত্ত অভিযোগ করেছেন, ১০ বছর আগে ‘হর্ন ওকে প্লিজ’ ছবির শুটিং সেটে নানা পাটেকার তাঁকে যৌন নিপীড়ন করেছিলেন। ওই ঘটনার পর তিনি ছবির দুনিয়া থেকে দূরে সরে যান। চলে যান যুক্তরাষ্ট্রে।

১০ বছর পর মুম্বাইয়ে ফিরে বর্ষীয়ান অভিনেতা নানা পাটেকার ও চিত্রপরিচালক বিবেক অগ্নিহোত্রীর বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ তোলেন।

মাইক্রো-ব্লগিং সাইটে তনুশ্রীর প্রতি সমর্থন জানিয়ে বলিউড তারকা অক্ষয় কুমারের স্ত্রী, অভিনেত্রী থেকে লেখক বনে যাওয়া টুইঙ্কেল খান্না বলেন, ‘যৌন হয়রানি ও হুমকিহীন কাজের পরিবেশ মানুষের মৌলিক অধিকার। আর এ ব্যাপারে মুখ খুলে এ সাহসী নারী (তনুশ্রী দত্ত) লক্ষ্য অর্জনে পথ দেখিয়েছে।’

যাহোক, তনুশ্রী-নানার যৌন নিপীড়ন বিতর্কে অংশ নেওয়ায় টুইঙ্কেলকে ধন্যবাদ জানান তনুশ্রী। তবে খোঁচা মেরে বলেন, ‘ম্যাম, আমাকে সমর্থনের জন্য ধন্যবাদ। কিন্তু তোমার স্বামী (অক্ষয় কুমার) এখনো তো নানা পাটেকারের সঙ্গে শুটিং করছে। এ ব্যাপারে কী বলবে?’

তনুশ্রী টুইঙ্কেলকে আরো বলেন, ‘এজন্যই প্রশ্ন তোলা যে—সমর্থনটা কতটুকু খাঁটি, কারণ এটা শাস্তির জন্য কোনো ফল বয়ে আনবে না।’

তনুশ্রী বলেন, ‘যদি কেউ নানা পাটেকারের সঙ্গে কাজ করে, তাহলে নানা নিজেকে বিজয়ী মনে করবে। তাঁরা আমার কাছে ক্ষমা চাইবে না এবং এর মধ্যেই তাঁরা মিথ্যা বলা শুরু করেছে। যখন তুমি এগিয়ে যাবে ও তাঁদের সঙ্গে কাজ করবে, তাঁরা নিজেকে বিজয়ী মনে করবে।’

সাবেক এ ভারত সুন্দরী বলেন, ‘এর পর আমি ১০ বছর কাটিয়েছি। কী ক্ষতির ভেতর দিয়ে গেছি—আর্থিকভাবে, আবেগের দিক থেকে ও মানসিকভাবে’...

তনুশ্রী দত্ত-নানা পাটেকার বিতর্কে সরগরম বলিউডপাড়া। বেশ কয়েকজন তারকা তনুশ্রীর ‘লড়াইকে’ সমর্থন দিলেও নানা পাটেকারের সমর্থনে এগিয়ে এসেছেন কেউ কেউ। বেশিরভাগ তারকাই মন্তব্য করতে চাইছেন না। নানার সমর্থনে এগিয়ে এসেছেন ‘বিতর্ক রানি’ রাখি সায়ন্ত। কারণ, যে গানের দৃশ্যটির শুটিং নিয়ে এত হৈচৈ, সেই গানে তনুশ্রীর পরিবর্তে তখন যুক্ত হন রাখি সায়ন্ত।

রাখি তনুশ্রী দত্তর অভিযোগ উড়িয়ে দিয়ে তাঁকে ‘পাগল’ আখ্যা দিয়েছেন। বলেন, ওই সময় শুটিং সেটে তনুশ্রী মাদকাসক্ত হয়ে বেহুঁশ ছিলেন। রাখি চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দিয়ে বলেন, তনুশ্রীর রক্ত পরীক্ষা করা হোক। তনুশ্রী যে মাদকাসক্ত, তা প্রমাণিত হবে। আর তা মিথ্যা প্রমাণিত হলে তিনি ভারত ছেড়ে চলে যেতে রাজি। সূত্র : ইন্ডিয়া টুডে।

ইউটিউবে এনটিভির জনপ্রিয় সব নাটক দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Advertisement