Beta

কলকাতায় গিয়ে ফেঁসে গিয়েছিলাম : অঞ্জু ঘোষ

০৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১৮:১৩ | আপডেট: ১০ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০৯:৩৬

এফডিসিতে সংবাদ সম্মেলনে অন্যদের সঙ্গে অঞ্জু ঘোষ (ডান থেকে দ্বিতীয়)। ছবি : সাইফুল সুমন

বাংলাদেশে দীর্ঘ ২২ বছর পর সাংবাদিকদের মুখোমুখি হলেন চলচ্চিত্র নায়িকা অঞ্জু ঘোষ, যিনি ব্যবসাসফল ‘বেদের মেয়ে জোসনা’র জন্য জনপ্রিয়তা পান। সাংবাদিকদের কাছে তিনি জানতে চান কেন দর্শক হলবিমুখ হলো। এ সময় নায়ক ইলিয়াস কাঞ্চনকে পাশে পেয়ে আবেগাপ্লুত হয়ে পড়েন তিনি। বার বার চোখের পানি  মুছতে দেখা যায় তাঁকে।

অঞ্জু ঘোষ বলেন, ‘আমি যখন এফডিসিতে ঢুকছিলাম তখন আমার অনেক খারাপ লাগছিল। কোথাও কোনো শুটিং নেই। এর আগে শুনেছি, এখন আর বাংলাদেশের চলচ্চিত্রের আগের দিন নেই। এখন নাকি বাংলাদেশের দর্শক অনেকটাই হলবিমুখ। অথচ আমরা যখন কাজ করেছি তখন একের পর এক কাজ করেছি। দর্শক সিনেমা হলে হুমড়ি খেয়ে পড়ত। আর এখন নাকি তেমন  দর্শক আসে না। আমি সাংবাদিক ভাইদের কাছে জানতে চাই, কেন দর্শক হলবিমুখ।’

কেন এত দিন কলকাতায় রয়েছেন জানতে চাইলে জনপ্রিয় এ নায়িকা বলেন, ‘আমি আসলে দুদিনের জন্য কলকাতায় গিয়েছিলাম। সেখানে গিয়ে দেখি আমার মা অসুস্থ। তারপর বিভিন্ন কারণে আর ফেরা হয়নি। আমি আসলে সেখানে গিয়ে ফেঁসে গিয়েছিলাম। এর চেয়ে বেশি কিছু বলার নেই।’

দীর্ঘ ২৩ বছর পর দেখা হয়েছে ইলিয়াস কাঞ্চনের সঙ্গে। তিনি অঞ্জু ঘোষকে বরণ করে নেন ফুলের মালা পরিয়ে। আবেগে জড়িয়ে ধরেন একে অপরকে। অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন মিশা সওদাগর, জায়েদ খান, নায়িকা অঞ্জনা ও আহমেদ শরিফ।

১৯৯৬ সালে দেশ ছাড়েন অঞ্জু ঘোষ। তখন থেকেই কলকাতায় বসবাস করছেন এই নায়িকা। কলকাতায় বেশ কিছু চলচ্চিত্রেও অভিনয় করেছেন তিনি। অঞ্জুর প্রকৃত নাম অঞ্জলি। ১৯৭২ থেকে ১৯৮১ সাল পর্যন্ত চট্টগ্রামের মঞ্চনাটকে অভিনয় করেন। ১৯৮২ সালে চলচ্চিত্র নির্মাতা এফ কবির চৌধুরী চলচ্চিত্রে আনেন তাঁকে। অঞ্জুকে নিয়ে তৈরি করেন ‘সওদাগর’। এরপর ১৯৮৯ সালে ‘বেদের মেয়ে জোসনা’ তাঁকে এনে দেয় তুমুল জনপ্রিয়তা। ঢালিউডে প্রায় ৫০টি ছবির অভিনেত্রী তিনি।

ইউটিউবে এনটিভির জনপ্রিয় সব নাটক দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Advertisement