Beta

ঈদে পাঁচদিন বন্ধ থাকবে হিলি বন্দর

৩০ আগস্ট ২০১৭, ২১:০৯

ঈদুল আজহা উপলক্ষে দিনাজপুরের হিলি স্থলবন্দর দিয়ে সব ধরনের পণ্য আমদানি-রপ্তানি বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বন্দরের ব্যবসায়ীরা। ফলে ১ সেপ্টেম্বর থেকে ৫ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত এই বন্দরের মাধ্যমে বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যে কোনো ধরনের পণ্য আমদানি-রপ্তানি করা হবে না। তবে হিলি চেকপোস্ট দিয়ে দুই দেশের মধ্যে পাসপোর্টে যাত্রী পারাপার স্বাভাবিক থাকবে।

বন্দরের বাংলাহিলি কাস্টমস সিঅ্যান্ডএফ এজেন্টস অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক আবদুর রহমান লিটন জানান, ২ সেপ্টেম্বর পবিত্র ঈদুল আজহা উদযাপিত হবে। তাই ১ সেপ্টেম্বর থেকে ৫ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত হিলি স্থলবন্দর দিয়ে এই দুই দেশের মধ্যে পণ্য আমদানি-রপ্তানি বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত সংগঠনের সভায় নেওয়া হয়। আগামী ৬ সেপ্টেম্বর থেকে পুনরায় শুরু হবে আমদানি-রপ্তানি কার্যক্রম।

লিটন আরো জানান, ঈদের কারণে প্রথমে ৭ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত হয়। কিন্তু দেশের বিভিন্নস্থানে বন্যা হওয়ায় বন্দর দিয়ে চালসহ ভোগ্যপণ্য বেশি করে আমদানি করার স্বার্থে দুইদিন কমিয়ে আনা হয়েছে। যাতে করে ব্যবসায়ীরা পণ্যের মজুদ বাড়াতে সরকারকে সহযোগিতা করতে পারেন।

এদিকে বন্দরের পানামা পোর্টের অভ্যন্তরে গিয়ে দেখা গেছে, আজ বুধবার বিকেলের মধ্যেই ব্যবসায়ীরা আমদানি করা বিভিন্ন পণ্যবাহী ট্রাক থেকে পণ্য খালাস করে নিয়েছেন। আর যে কয়েকটি পণ্যবাহী ট্রাক থাকবে তা কাল বৃহস্পতিবার খালাস কার্যক্রম শেষ করা হবে বলে জানান কাস্টমস সুপারিনটেনডেন্ট মো. ফখর উদ্দীন।

হিলি ইমিগ্রেশন চেকপোস্টের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আফতাব হোসেন জানান, বন্দরে পণ্য আমদানি-রপ্তানি বন্ধের সঙ্গে পাসপোর্ট যাত্রী পারাপারের কোনো সম্পর্ক নেই। প্রতিদিন সকাল ৯টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত এই ইমিগ্রেশন চেকপোস্ট দিয়ে দুই দেশের মধ্যে যাত্রী চলাচল করে।

ইউটিউবে এনটিভির জনপ্রিয় সব নাটক দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Advertisement