Beta

‘খুনির নাম’ বলেই ঢলে পড়লেন এনজিওকর্মী

২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৯:০১ | আপডেট: ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১০:৫৬

গতকাল বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে কক্সবাজারের উখিয়া উপজেলায় দুর্বৃত্তের ছুরিকাঘাতে নিহত মাজহারুল ইসলাম। ছবি : এনটিভি

কক্সবাজারের উখিয়া উপজেলায় দুর্বৃত্তের ছুরিকাঘাতে মাজহারুল ইসলাম নামের এক এনজিওকর্মীর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে উপজেলার হলদিয়াপালং ইউনিয়নের পশ্চিম মরিচ্যা-গুরাইয়ারদ্বীপ সড়কের চৌরাস্তার মাথায় এ ঘটনা ঘটে।

মাজহারুলের আইডি কার্ড থেকে শনাক্ত করা হয় তাঁর নাম-পরিচয়। তিনি রংপুরের পীরগঞ্জ উপজেলার কলোনির হাট এলাকার বাসিন্দা।

এদিকে ছুরিকাঘাতে রক্তাক্ত অবস্থায় মাজহারুলের একটি ভিডিও ছড়িয়ে পড়েছে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে। সেখানে দেখা যায়, রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে রয়েছেন মাজহারুল। সেইসঙ্গে যন্ত্রণায় কাতরাচ্ছিলেন তিনি। ওই সময় তাঁকে ঘিরে ছিলেন স্থানীয়রা।

প্রত্যক্ষদর্শীরা বলছেন, জ্ঞান থাকা অবস্থায় মাজহারুল জানিয়েছিলেন, উখিয়া উপজেলার ইনানী এলাকার আলাউদ্দিন নামের এক ব্যক্তি তাঁকে ছুরিকাঘাত করেছে। এরপরই স্থানীয় লোকজন আলাউদ্দিনের বাবার নাম জানতে চাইলে এর মধ্যেই মাটিতে ঢলে পড়ে যান মাজহারুল। পরে তিনি আর কথা বলতে পারেননি।

স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) সদস্য মনজুর আলম বলেন, ‘স্থানীয় লোকজন ছুরিকাঘাতে গুরুতর আহত এক যুবককে পড়ে থাকতে দেখে আমাকে খবর দিলে আমরা দ্রুত তাঁকে উদ্ধার করে উখিয়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাই। সেখানে চিকিৎসক তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন। তাঁর শরীরের বিভিন্ন স্থানে ছুরিকাঘাতের চিহ্ন রয়েছে। তবে কী কারণে কে বা কারা তাঁকে হত্যা করেছে, তা এখনো নিশ্চিত হওয়া যায়নি। তাঁর কাছ থেকে পাওয়া আইডি কার্ড থেকে পরিচয় শনাক্ত করা হয়েছে। তাঁর নাম মাজহারুল ইসলাম এবং বাড়ি পীরগঞ্জ কলোনির হাট এলাকায়। এ ছাড়া তাঁর কাছ থেকে ব্র্যাক এনজিও সংস্থার কিছু কাগজপত্র পাওয়া গেছে বলে জানান ইউপি সদস্য।

উখিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আবুল মনসুর ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে।

Advertisement