Beta

প্রেমিকাকে পেতে স্ত্রীকে হত্যা, আসামিদের গ্রেপ্তার দাবিতে মানববন্ধন

২১ জুলাই ২০১৯, ২৩:০৬

নরসিংদীর রায়পুরা উপজেলায় মরিয়ম আক্তার হত্যার ঘটনায় আসামিদের গ্রেপ্তার ও বিচারের দাবিতে আজ রোববার দুপুরে নরসিংদী প্রেসক্লাবের সামনে মানববন্ধন করা হয়। ছবি : এনটিভি

নরসিংদীর রায়পুরা উপজেলায় পুরোনো প্রেমিকাকে পাওয়ার জন্য স্ত্রীকে শ্বাসরোধ করে হত্যার ঘটনায় আসামিদের গ্রেপ্তার ও বিচারের দাবিতে মানববন্ধন হয়েছে। আজ রোববার দুপুরে রায়পুরার চর আড়ালিয়াবাসীর ব্যানারে নরসিংদী প্রেসক্লাবের সামনে ঘণ্টাব্যাপী এ মানববন্ধন হয়। চর আড়ালিয়া গ্রামের নারী-পুরুষসহ তিন শতাধিক মানুষ এতে অংশ নেয়।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, তিন মাস আগে পারিবারিকভাবে চর আড়ালিয়া গ্রামের রাসেলের সঙ্গে একই গ্রামের মরিয়ম আক্তারের (১৯) বিয়ে হয়। বিয়ের আগে থেকেই একই গ্রামের শেফালী বেগমের সঙ্গে রাসেলের প্রেমের সম্পর্ক ছিল। বিয়ে করলেও রাসেল প্রেমিকাকে ভুলতে পারেননি। তাই পুনরায় প্রেমিকাকে বিয়ের প্রস্তাব দেন। ওই সময় প্রেমিকা তাঁকে জানান, বিয়ে করতে হলে স্ত্রী মরিয়মকে তালাক দিতে হবে, না হয় হত্যা করতে হবে। এরই পরিপ্রেক্ষিতে গত ৩ জুলাই দুপুরে ঘুমন্ত অবস্থায় স্ত্রী মরিয়ম বেগমকে গলায় গামছা পেঁচিয়ে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে। পরে লাশ পাশের নদীতে ফেলে দেন। স্বামী রাসেলের গতিবিধি সন্দেহ হলে প্রতিবেশীরা পুলিশকে খবর দেয়। পুলিশ রাসেলকে আটক করে। পরে তার দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে নদী থেকে লাশ উদ্ধার করে।

এ ঘটনায় রাসেল পুলিশের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তার স্ত্রীকে শ্বাসরোধ করে হত্যার কথা স্বীকার করেন। নিহত মরিয়মের বাবা মো. শাহ আলম বাদী হয়ে রাসেল, তার প্রেমিকা শেফালী বেগম, সহযোগী ইয়াছিন, নয়ন মিয়া, রাহিমা ও জয়নালকে আসামি করে রায়পুরা থানায় মামলা করেন।

ঘটনার প্রায় ১৮ দিন পার হলেও পুলিশ আসামিদের গ্রেপ্তার করতে পারেনি। এরই ধারাবাহিকতায় নিহতের পরিবার ও এলাকাবাসী এ মানববন্ধন করে। মানববন্ধন শেষে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে স্মারকলিপি দেওয়া হয়।

মানববন্ধনে বক্তব্য দেন চর আড়ালিয়া ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান হাসানুজ্জামান হাসান, সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান নুরুজ্জামান প্রমুখ।

Advertisement