Beta

বায়তুল মোকাররমে এরশাদের তৃতীয় জানাজা সম্পন্ন

১৫ জুলাই ২০১৯, ১৮:৩৯ | আপডেট: ১৫ জুলাই ২০১৯, ১৮:৪৬

নিজস্ব প্রতিবেদক

বায়তুল মোকাররমে সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদের তৃতীয় জানাজা সম্পন্ন হয়েছে।

আজ সোমবার বিকেল ৫টা ৪৫ মিনিটে জানাজা অনুষ্ঠিত হয়।

এ সময় জাতীয় পার্টির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান জি এম কাদের সাবেক রাষ্ট্রপতি  এরশাদের জন্য ক্ষমা চান। তিনি বলেন, ‘কেউ ভুল ত্রুটির ঊর্ধ্বে নয়। উনি যদি ভুল করেন আপনারা মাফ করে দিবেন।’

মসজিদের দক্ষিণ গেট দিয়ে এরশাদের কফিন প্রবেশ করানো হয়। জানাজায় অংশ নেন বিপুল মানুষ।

সারা দেশ থেকে আগত নেতাকর্মী, সরকারের কয়েকজন মন্ত্রী, সংসদ সদস্য এবং জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্যরা জানাজায় উপস্থিত ছিলেন।

এর আগে দলীয় কার্যালয় থেকে বিকেল ৫টায় বায়তুল মোকাররম এলাকায় নেওয়া হয় এরশাদের মরদেহ।

বায়তুল মোকাররমে জানাজা শেষে এরশাদের লাশ সিএমএইচের হিমঘরে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে রাতে রাখা হবে। এরপর আগামীকাল সকালে আবার হেলিকপ্টারযোগে রংপুরে নিয়ে যাওয়া হবে লাশ।

এর আগে জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান ও সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের দ্বিতীয় জানাজা জাতীয় সংসদের দক্ষিণ প্লাজায় অনুষ্ঠিত হয়। জানাজায় অংশ নেওয়ার পাশাপাশি সংসদের বিরোধীদলীয় নেতার প্রতি শ্রদ্ধা জানান রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ। শ্রদ্ধা জানানো হয় প্রধানমন্ত্রী ও সংসদের স্পিকারের পক্ষ থেকেও।

সংসদ সদস্য কিংবা বিরোধীদলীয় নেতা হিসেবে এরশাদ জাতীয় সংসদে গিয়েছেন বহুবার। আজ সোমবার যান শেষবারের মতো; তবে কফিনবন্দি হয়ে। বিরোধীদলীয় নেতা হিসেবে সংসদের দক্ষিণ প্লাজায় জানাজার আগে স্বামীর রুহের মাগফিরাত কামনায় সবার কাছে দোয়া চান রওশন এরশাদ।

জানাজায় অংশ নেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ, আওয়ামী লীগ নেতা তোফায়েল আহমেদ, বিএনপিনেতা ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক দল ও সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠনের নেতারা।

পরে এরশাদের কফিনে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ। প্রধানমন্ত্রীর পক্ষে শ্রদ্ধা জানান তাঁর সামরিক সচিব মেজর জেনারেল জয়নাল আবেদীন। পরে বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতাকর্মীরা শ্রদ্ধা জানান জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের প্রতি।

Advertisement