Beta

ভৈরবে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে শ্রমিক নিহত

১৫ জুন ২০১৯, ০৯:৩৩ | আপডেট: ১৫ জুন ২০১৯, ১১:০২

গতকাল শুক্রবার দুপুরে কিশোরগঞ্জের ভৈরব উপজেলায় বিদ্যুৎস্পৃষ্টে নিহত শাহিন মিয়ার মরদেহ। ছবি : এনটিভি

কিশোরগঞ্জের ভৈরব উপজেলায় বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে শাহিন মিয়া (২৪) নামের এক শ্রমিক নিহত হয়েছেন। গতকাল শুক্রবার দুপুরে শহরের তাঁতারকান্দি এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

নিহত শাহিন শহরের জগন্নাথপুর আওয়ালকান্দা এলাকার মৃত ইউনুছ মিয়ার ছেলে। তিনি লেবার সর্দার আরমানের অধীনে বেসরকারি বিদ্যুৎ শ্রমিক হিসেবে কাজ করতেন।

সহকর্মীরা জানায়, গতকাল দুপুরে শাহিনসহ ভৈরব বিদ্যুৎ অফিসের কয়েকজন শ্রমিক তাঁতারকান্দি এলাকায় ঝড়ে বিধ্বস্ত একটি বৈদ্যুতিক খুঁটি মেরামত করতে যান। কাজ শেষ করে বৈদ্যুতিক খুঁটির সংযোগ চালু করে ফিরে যাচ্ছিলেন তাঁরা। কিন্তু শাহিন ওই বৈদ্যুতিক খুঁটির পাশে ভুল করে তাঁর জুতা ফেলে রেখে যান। কিন্তু এরই মধ্যে বিদ্যুৎ লাইনের সংযোগ চালু হওয়ায় মাটিতে পুঁতে রাখা বৈদ্যুতিক খুঁটির টানায় বিদ্যুৎ প্রবাহিত হওয়ায় শাহিন সেখানে যাওয়া মাত্র বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হন। এ সময় তাঁর সহকর্মীরা তাঁকে উদ্ধার করে ভৈরব উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে চিকিৎসক শাহিনকে মৃত ঘোষণা করেন।

শাহিনের মৃত্যুতে দুঃখ প্রকাশ করে ভৈরব বিক্রয় ও বিতরণ কেন্দ্রের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. শফিকুল ইসলাম জানান, নিহত শাহিন দীর্ঘদিন ধরে বেসরকারি লেবার সর্দার আরমানের অধীনে লাইনম্যান হিসেবে কাজ করছিলেন।

লেবার সর্দার আরমান মিয়া জানান, শাহিন তাঁর অধীনে আরো চার থেকে পাঁচজনের সঙ্গে বেসরকারি বিদ্যুৎ শ্রমিক হিসেবে বিভিন্ন লাইন মেরামতের কাজ করতেন। ভৈরব বিদ্যুৎ অফিসের সহযোগিতা নিয়ে নিহত শাহিনের পরিবারকে আর্থিক সহায়তা করা হবে বলেও জানান আরমান।

মৃত ইউনুছ মিয়ার দুই ছেলে ও দুই মেয়ের মধ্যে শাহিন দ্বিতীয়। তাঁর পরিবারে বৃদ্ধ মাসহ স্ত্রী ও চার মাসের এক সন্তান রয়েছে। শাহিনের অকাল মৃত্যুতে এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে। চার মাসের অবুঝ শিশুকে কোলে নিয়েই বার বার জ্ঞান হারাচ্ছেন শাহিনের স্ত্রী।

Advertisement