Beta

ময়মনসিংহে যুবলীগকর্মীর লাশ উদ্ধার, দুই স্ত্রী আটক

১৩ জুন ২০১৯, ২২:৩১

ময়মনসিংহের যুবলীগকর্মী শফিকুল ইসলাম শপু। ছবি : সংগৃহীত

নিখোঁজের তিনদিন পর ময়মনসিংহের আকুয়া এলাকা থেকে যুবলীগকর্মী শফিকুল ইসলাম শপুর (২৫) লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য শফিকুলের দুই স্ত্রী আফরোজা শেখ ইতি ও মাহমুদাকে আটক করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার দুপুরে শহরের আকুয়া কলাবাগান এলাকার একটি পুকুর থেকে শফিকুলের লাশ উদ্ধার করা হয়।

নিহত শফিকুল আকুয়া বাঁশবাড়ি কলোনির বাসিন্দা। তিনি রাজনৈতিক প্রতিপক্ষের হাতে নিহত যুবলীগনেতা আজাদ শেখের ভগ্নিপতি।

শফিকুলের স্বজনরা জানান, গত ১০ জুন সোমবার রাতে বাড়ি থেকে বের হয়ে আর বাসায় ফেরেননি শফিকুল। আজ দুপুরে স্থানীয়রা আকুয়া কলাবাগান এলাকার একটি পুকুরে শফিকুলের মরদেহ দেখতে পেয়ে পুলিশকে খবর দেয়। পরে ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। ময়নাতদন্তের জন্য লাশটি ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ (মমেক) মর্গে পাঠানো হয়।

এর আগে ১১ জুন রাতে শফিকুলের ছোট স্ত্রী আফরোজা শেখ ইতি কোতোয়ালি থানায় স্বামীর নিখোঁজ হওয়ার বিষয়ে একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন।

কোতোয়ালি মডেল থানার পরিদর্শক (অপারেশন) খন্দকার শাকের আহমেদ বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, যুবলীগকর্মী শফিকুল ইসলামের লাশ উদ্ধার করে মর্গে পাঠানো হয়েছে। ঘটনাটি তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে। এ ঘটনায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলেও জানান এই পুলিশ কর্মকর্তা।

এর আগে ২০১৮ সালের ৩১ জুলাই শফিকুলের ভগ্নিপতি মহানগর যুবলীগ সদস্য আজাদ শেখ ও সাজ্জাদ আলম শেখকে গুলি করে এবং গলা কেটে হত্যা করে রাজনৈতিক প্রতিপক্ষ।

Advertisement