Beta

জাপান পৌঁছেছেন শেখ হাসিনা

২৮ মে ২০১৯, ১৯:৩৬

ইউএনবি
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মঙ্গলবার সন্ধ্যায় টোকিও পৌঁছালে জাপানের পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী তোশিকো আবে তাঁকে স্বাগত জানান। ছবি : ফোকাস বাংলা

তিন দেশ সফরের অংশ হিসেবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা চার দিনের জাপান সফরে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় টোকিও পৌঁছেছেন।

প্রধানমন্ত্রী ও তাঁর সফরসঙ্গীদের বহনকারী ফ্লাইটটি স্থানীয় সময় সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় (বাংলাদেশ সময় বিকেল সাড়ে ৩টা) টোকিওর হানেদা আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণ করে। সেখানে জাপানের পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী তোশিকো আবে প্রধানমন্ত্রীকে স্বাগত জানান। এ সময় জাপানে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত রাবাব ফাতিমা উপস্থিত ছিলেন।

পরে শেখ হাসিনাকে মোটর শোভাযাত্রা সহকারে সিওদা সিটির হোটেল নিউ ওতানিতে নিয়ে যাওয়া হয়। জাপান সফরকালে তিনি এখানেই অবস্থান করবেন।

এর আগে জাপান, সৌদি আরব ও ফিনল্যান্ডে ১২ দিনব্যাপী সফরের উদ্দেশে মঙ্গলবার সকালে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনসের একটি বিশেষ ফ্লাইটে ঢাকা ত্যাগ করেন প্রধানমন্ত্রী। বিশেষ ফ্লাইটটি ৯টা ১০ মিনিটে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর ত্যাগ করে।

প্রধানমন্ত্রীর সফরসঙ্গী হিসেবে রয়েছেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল, প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি শিল্প ও বিনিয়োগ উপদেষ্টা সালমান এফ রহমান, পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মো. শাহরিয়ার আলম, প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী ইমরান আহমেদ এবং বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ।

জাপান সফরকালে কাল বুধবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবের মধ্যে দ্বিপক্ষীয় বৈঠক শেষে দুই দেশ ২৫০ কোটি মার্কিন ডলারের ৪০তম অফিশিয়াল ডেভেলপমেন্ট অ্যাসিসটেন্স (ওডিএ) চুক্তি স্বাক্ষর করবে।

শেখ হাসিনা বৃহস্পতিবার এশিয়ার ভবিষ্যৎ নিয়ে এক আন্তর্জাতিক সম্মেলনে অংশ নেবেন।

এর আগে জাপান সফরের প্রথম দিন হোটেল ওকুরায় প্রবাসী বাংলাদেশিদের এক অনুষ্ঠানে যোগ দেবেন শেখ হাসিনা।

বুধবার সকালে হোটেল নিউ ওতানিতে জাপানের ব্যবসায়ী নেতা ও সিইওদের সঙ্গে এক প্রাতঃরাশ ও আলোচনায় অংশ নেবেন প্রধানমন্ত্রী। পরে তাঁর সঙ্গে ঢাকার হলি আর্টিজান বেকারিতে হামলায় নিহত জাপানিদের পরিবারের সদস্যরা সাক্ষাৎ করবেন।

বিকেলে শেখ হাসিনা জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবের সঙ্গে তাঁর কার্যালয়ে দ্বিপক্ষীয় বৈঠকে বসবেন। শেখ হাসিনা জাপানের প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে পৌঁছালে তাঁকে গার্ড অব অনার দেওয়া হবে। দ্বিপক্ষীয় আলোচনা শেষে চুক্তি স্বাক্ষর ও যৌথ বিবৃতি দেওয়া হবে। পরে সন্ধ্যায় প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবের বাসভবনে অফিশিয়াল নৈশভোজে যোগ দেবেন তিনি।

শেখ হাসিনা বৃহস্পতিবার ইম্পেরিয়াল হোটেলে ‘দ্য ফিউচার অব এশিয়া’ শীর্ষক নিক্কাই আন্তর্জাতিক সম্মেলনে অংশ নেবেন। এবারের ২৫তম সম্মেলনে মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী মাহাথির মোহাম্মদ এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করবেন।

সম্মেলনের এ বছরের প্রতিপাদ্য ‘ইন সার্চ অব দ্য নিউ গ্লোবাল অর্ডার ওভারকামিং দ্য ক্যাওয়াস’।

পরে জাইকা প্রেসিডেন্ট শিনিচি কিতাওকা প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন।

সন্ধ্যায় নিক্কাই সম্মেলনের নৈশভোজে যোগ দেবেন প্রধানমন্ত্রী। অনুষ্ঠানে জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করবেন।

প্রধানমন্ত্রী মক্কায় ওআইসির ইসলামিক সম্মেলনের ১৪তম অধিবেশনে যোগদানের জন্য জেদ্দার উদ্দেশে ৩১ মে স্থানীয় সময় সকাল ৯টা ২৫ মিনিটে হানেদা আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর ত্যাগ করবেন।

সৌদি আরব সফরকালে প্রধানমন্ত্রী ১ জুন মক্কায় ওআইসির ইসলামিক সম্মেলনের ১৪তম অধিবেশনে যোগদানের পাশাপাশি পবিত্র ওমরা পালন এবং ২ জুন হজরত মুহাম্মাদ (স.)-এর রওজা মুবারক জিয়ারত করবেন।

প্রধানমন্ত্রী ৩ জুন হেলসিংকির উদ্দেশে জেদ্দা ত্যাগ করবেন। তিনি জার্মানির ফ্রাঙ্কফুট হয়ে ফিনল্যান্ডে পৌঁছাবেন।

ফিনল্যান্ড সফরকালে ৪ জুন দেশটির প্রেসিডেন্ট সলি নিনিস্তোর সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন শেখ হাসিনা। তিনি ৭ জুন সন্ধ্যায় হেলসিংকি ত্যাগ করে ৮ জুন দেশে ফিরবেন।

Advertisement