Beta

ময়মনসিংহে ‘কোটি টাকা’ মূল্যের বিদ্যুতের তার উদ্ধার

০৬ মার্চ ২০১৯, ১০:৫৯

ময়মনসিংহ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি-১। পুরোনো ছবি

ময়মনসিংহের মুক্তাগাছা উপজেলায় ব্যক্তিমালিকানাধীন একটি বাংলো বাড়ি থেকে ‘কোটি টাকা’ মূল্যের সরকারি বিদ্যুতের তার উদ্ধার করা হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

গতকাল মঙ্গলবার রাতে উপজেলার গাবতলী বাজার এলাকার স্বপ্নীল বার্ড পার্ক নামে একটি বাংলো বাড়ি থেকে তারগুলো উদ্ধার করা হয়। তবে এ সময় কাউকে আটক করতে পারেনি পুলিশ।

তারগুলো বিভিন্ন সময় চুরি করা হয়েছে বলে দাবি করছে পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি। বাংলো বাড়িটির মালিক শওকত জং নামে ঢাকার এক প্রভাবশালী ব্যক্তি বলে জানান সংশ্লিষ্টরা।

ময়মনসিংহ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি-১ ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, বাংলো বাড়িটিতে দীর্ঘদিন ধরে দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে পল্লী বিদ্যুতের চুরি যাওয়া সরকারি তার মজুদ করে পরে বিক্রি করা হতো বলে অভিযোগ ছিল। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে গতকাল রাতে পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির কর্মকর্তাদের সঙ্গে নিয়ে মুক্তাগাছা থানা পুলিশ বাংলোটিতে অভিযান চালায়। পরে সেখানে তারগুলো উদ্ধার করা হয়।

পুলিশ জানায়, বাংলোর ভেতর পরিত্যক্ত অবস্থায় ১০৪ ড্রাম তার উদ্ধার করা হয়। যার পরিমাণ প্রায় এক হাজার কিলোমিটার। উদ্ধার করা তারগুলো দেশের বিভিন্ন স্থানে পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি থেকে চুরি যাওয়া বলে দাবি করা হয়। এই তারের বাজারমূল্য প্রায় এক কোটি টাকা বলে দাবি করেছে পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি কর্তৃপক্ষ।

ময়মনসিংহ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি-১-এর জেনারেল ম্যানেজার মো. মকবুল হোসেন জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশকে সঙ্গে নিয়ে অভিযান চালিয়ে ১০৪ ড্রাম তার উদ্ধার করা হয়। তারগুলো কেটে টুকরো করে ফেলা হয়েছে।

মকবুল হোসেন আরো জানান, এগুলো পল্লী বিদ্যুতের সরকারি তার। বিভিন্ন সমিতি থেকে চুরি যাওয়া তারগুলো সেখানে মজুদ করে একটি চক্র বিক্রি করত। উদ্ধার করা তার দিয়ে এক হাজার কিলোমিটার বিদ্যুতায়ন করা যেত।

মুক্তাগাছা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আলী আহমদ মোল্লা জানান, বিপুল পরিমাণ তার উদ্ধার করা হয়েছে। কাউকে গ্রেপ্তার করা সম্ভব হয়নি। তবে মামলাসহ আনুষঙ্গিক প্রক্রিয়া চলছে।

Advertisement