Beta

আশুগঞ্জে স্বামীর বিরুদ্ধে স্ত্রী হত্যার অভিযোগ

০৮ ডিসেম্বর ২০১৮, ১৮:৫২

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আশুগঞ্জ উপজেলায় সোহাগ নামের এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে স্ত্রী তানজিনাকে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। আজ শনিবার ভোরে উপজেলার শরীয়তনগর এলাকা থেকে তানজিনার মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। নিহত তানজিনা হবিগঞ্জ জেলার লাখাই উপজেলার শিবপুর গ্রামের রেনু মিয়ার মেয়ে।

পুলিশ ও স্থানীয়দের সূত্রে জানা যায়, ছয় বছর আগে তানজিনাকে বিয়ে করেন সোহাগ। দুই বছর ধরে আশুগঞ্জের শরীয়তনগরের ফিরোজ মিয়া কলোনিতে ভাড়া বাড়িতে বসবাস করে আসছিলেন এ দম্পতি। এ বাসাতেই মৃত্যুর ঘটনা ঘটে।

তানজিনার মৃত্যুকে আত্মহত্যা বলে চালানোর চেষ্টা করা হয় বলে অভিযোগ করেছে তাঁর পরিবার। তাঁর বাবা রেনু মিয়া অভিযোগ করেন, সোহাগ প্রায়ই যৌতুকের জন্য তাঁর মেয়েকে মারধর করতেন। মেয়ের পারিবারিক শান্তির কথা চিন্তা করে দুই মাস আগে তিনি জামাইকে ৫০ হাজার টাকাও দেন বলে জানান। কিন্তু তারপরেও শেষ রক্ষা হলো না। তিনি এ হত্যাকাণ্ডে সংশ্লিষ্টদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করেন।

আশুগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বদরুল আলম তালুকদার বলেন, তানজিনার গলায় ও শরীরে একাধিক আঘাতের চিহ্ন পাওয়া গেছে। তাঁকে গলা টিপে হত্যা করা হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করছে পুলিশ।

ওসি বলেন, আজ ভোরে তানজিনার মৃত্যুর খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গেলে তাদের উপস্থিতি টের পেয়ে সোহাগ ও তাঁর বাবা পালিয়ে যান। এ ঘটনায় সোহাগের মা রুবিনাকে আটক করা হয়েছে বলেও জানান তিনি।

তানজিনার মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এ ব্যাপারে একটি মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে পুলিশ জানিয়েছে।

ইউটিউবে এনটিভির জনপ্রিয় সব নাটক দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Advertisement