Beta

মাদ্রাসাছাত্রীকে অপহরণের চেষ্টা, বাধা দিলে বাবাকে হত্যা

০৫ মে ২০১৮, ২২:৫২

বগুড়ার গাবতলী উপজেলার পেরীর হাট এলাকায় বাসায় গিয়ে এক মাদ্রাসাছাত্রীকে অপহরণের চেষ্টা করেছে বখাটেরা। এ সময় ছাত্রীর বাবা বাধা দিলে বখাটেরা তাকে ছুরিকাঘাত করে হত্যা করে।

নিহত ব্যক্তির নাম সায়েদ আলী। হত্যাকাণ্ডে জড়িত থাকার অভিযোগে রনি (২২) নামের এক বখাটেকে আটক করে পুলিশে দিয়েছে এলাকাবাসী। রনির বাড়ি একই উপজেলার নিশ্চিন্তপুর গ্রামে।

গাবতলী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল বাশার জানান, বেশ কিছুদিন ধরে বখাটে রনি সায়েদ আলীর মেয়ে পেরীর হাট দাখিল মাদ্রাসার দশম শ্রেণির ছাত্রীর পথরোধ করে বিয়ের প্রস্তাব দিয়ে নানাভাবে উত্ত্যক্ত করে আসছিল। ওই ছাত্রী তাঁর প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় আজ রাত ৮টায় বখাটে রনি ও দুজন সহযোগিকে নিয়ে পেরীর হাট পূর্বপাড়ায় সায়েদ আলীর বাড়িতে যায়। তারা ছাত্রীকে জোর করে উঠিয়ে নিতে চাইলে বাবা সায়েদ আলী বাধা দেন।

এ সময় কথা কাটাকাটির একপর্যায়ে বখাটেরা সায়েদ আলীকে এলোপাতাড়ি ছুরিকাঘাত করে। পালিয়ে যাওয়ার সময় এলাকাবাসী রনিকে আটক করে পুলিশে দেয়। সায়েদ আলীকে শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে তাঁর মৃত্যু হয়।

ওসি আরো জানান, হত্যাকাণ্ডে জড়িত বাকি দুজনকে দ্রুতই গ্রেপ্তার করা হবে।

ইউটিউবে এনটিভির জনপ্রিয় সব নাটক দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Advertisement