Beta

সীমান্তের গুলিবিদ্ধ লাশ নিয়ে গেছে বিএসএফ

০৬ জুলাই ২০১৭, ১৩:২৯ | আপডেট: ০৬ জুলাই ২০১৭, ১৩:৩২

হায়দার আলী বাবু, লালমনিরহাট

লালমনিরহাটের হাতীবান্ধা উপজেলার দইখাওয়া সীমান্তসংলগ্ন কাঁটাতারের বেড়ার এপাশে শূন্যরেখায় (নো ম্যান্স ল্যান্ড) পড়ে থাকা গুলিবিদ্ধ ব্যক্তির লাশ নিয়ে গেছে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বর্ডার সিকিউরিটি ফোর্স (বিএসএফ)।

আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে সীমান্তরক্ষী বাহিনী বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) সঙ্গে পতাকা বৈঠকের পর লাশ নেওয়ার সিদ্ধান্তের কথা জানায় বিএসএফ।

তবে লাশটির পরিচয় এখনো নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

এলাকাবাসীর অভিযোগ, গতকাল বুধবার রাত ১টার দিকে তাঁরা সীমান্তে গুলির শব্দ শুনেছেন। আজ সকালে সেখানে লাশ পড়ে থাকতে দেখে বিজিবিকে খবর দেন। আজ বৃহস্পতিবার সকালে বিজিবির পক্ষ থেকে এ ঘটনায় পতাকা বৈঠকের জন্য বিএসএফকে চিঠি পাঠানো হয়।

বিজিবির দইখাওয়া ক্যাম্পের সুবেদার আবদুল কাদের জানান, দুপুরে এ ব্যাপারে বিজিবির সঙ্গে পতাকা বৈঠক হয়েছে। লাশটি শনাক্ত করার জন্য সীমান্তবর্তী গ্রামের চারজনকে পাঠানো হয়েছিল। তাঁরা লাশ শনাক্ত করতে ব্যর্থ হয়েছেন। পরে বিএসএফ লাশটি ভারতের অভ্যন্তরে নিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্তের কথা জানায়। 

সুবেদার আরো বলেন, রাতে তাঁরাও গুলির শব্দ শুনেছেন।

বিজিবি ও সীমান্তবাসী জানায়, আন্তর্জাতিক সীমান্ত পিলার ৯০৫-এর ১০ নম্বর সাব-পিলারের কাছে ভারতের পুটিয়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

ইউটিউবে এনটিভির জনপ্রিয় সব নাটক দেখুন। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের চ্যানেলটি:

Advertisement