Beta

৭ মার্চের ভাষণের স্বীকৃতি

স্পেনে আলোচনা ও শোভাযাত্রা

০৭ ডিসেম্বর ২০১৭, ১১:০০

হোসাইন মোহাম্মাদ ইকবাল, স্পেন

স্পেনের মাদ্রিদে বাংলাদেশ দূতাবাসে ইউনেসকো কর্তৃক পৃথিবীর গুরুত্বপূর্ণ দালিলিক ঐতিহ্য হিসেবে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ১৯৭১ সালের ৭ মার্চের ঐতিহাসিক ভাষণটির স্বীকৃতি অর্জনে উদযাপন করা হয়েছে। মাদ্রিদে গত মঙ্গলবার বাংলাদেশ কমিউনিটিকে সঙ্গে নিয়ে আনন্দঘন পরিবেশে এই আয়োজন করা হয়।

অনুষ্ঠানটি মিনিস্টার অ্যান্ড হেড অব চ্যান্সেরি হারুন আল রশীদ সঞ্চালনা করেন। প্রধান অতিথি হিসেবে স্পেনে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত হাসান মাহমুদ খন্দকার বাংলাদেশের মহান মুক্তিযুদ্ধে ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ভাষণকে মহাকাব্য হিসেবে অভিহিত করে এর তাৎপর্য তুলে ধরেন। তিনি বলেন, ইউনেসকোর মেমোরি অব দ্য ওয়ার্ল্ডের এই স্বীকৃতির মাধ্যমে বাংলাদেশ বহুদূর এগিয়ে গেল।

আমি মনে করি, আমাদের জাতির জন্য, আমাদের জন্য সামনের দিকে এগিয়ে যাওয়ার জন্য, আমরা যে কার্যক্রম শুরু করেছি, যে কার্যক্রম এর মধ্য আমরা সম্পৃক্ত আছি। সেটাকে যদি অব্যাহত রাখতে চাই, এ ধরনের চালিকাশক্তি এই অনুপ্রেরণা আমাদের দরকার। আর সে অনুপ্রেরণা হচ্ছে ৭ মার্চের ভাষণ।

এই অনন্য স্বীকৃতি অর্জন উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক প্রদত্ত বাণী পাঠ করে শোনান কমার্শিয়াল কাউন্সিল নাভিদ শফিউল্লাহ ও প্রথম সচিব লেবার উইং মো. শরিফুল ইসলাম। এরপর জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ১৯৭১ সালের ৭ মার্চের ঐতিহাসিক ভাষণটির রঙিন ভিডিও চিত্র প্রদর্শন করা হয়। 

অনুষ্ঠানে দূতাবাসের কর্মকর্তা-কর্মচারীসহ বিপুলসংখ্যক প্রবাসী বাংলাদেশি উপস্থিত ছিলেন। বাংলাদেশ প্রেসক্লাব অব স্পেনের সভাপতি এ কে এম জহিরুল ইসলাম, আওয়ামী লীগ নেতা রিজবী আলম, কবি মিনহাজুল আলম মামুন, সাহাদুল সোহেদ, কবির আল মাহমুদ, সাইফুল আমিন, আমিন জামান, তারেক হোসেনসহ আরো অনেকে উপস্থিত ছিলেন।

এ ছাড়া দূতাবাস প্রাঙ্গণে প্রবাসী বাংলাদেশি ও দূতাবাসের কর্মকর্তাদের উপস্থিতিতে আনন্দ শোভাযাত্রার আয়োজন করা হয়।

Advertisement
0.84316682815552