Beta

দক্ষিণ কোরিয়ায় বাংলাদেশিদের ঈদ পুনর্মিলনী

১০ জুলাই ২০১৭, ২৩:৫২

মনির পাটোয়ারী, দক্ষিণ কোরিয়া

দক্ষিণ কোরিয়ায় বাংলাদেশ অরগানাইজেশনের উদ্যোগে ঈদ পুনর্মিলনী ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়েছে। সম্প্রতি দক্ষিণ কোরিয়ার ইনছন পুচ্ছনে এই অনুষ্ঠান হয়।

অনুষ্ঠানটি আয়োজন করে প্রবাসী কমিউনিটি সংগঠন বাংলাদেশ অরগানাইজেশন ও পুচ্ছন বিদেশি সাহায্য সংস্থা (ইয়ংজুমিয়ন সেন্টার)। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশ অরগানাইজেশনের সভাপতি রতন আহমেদ। উপস্থাপনা করেন সাধারণ সম্পাদক ফারুক হোসেন রনি।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন দক্ষিণ কোরিয়ায় বাংলাদেশ দূতাবাসের প্রথম সচিব জাহিদুল ইসলাম ভূইয়া। আমন্ত্রিত অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ কেন্দ্রীয় পরিষদের সভাপতি সৈয়দ কায় খসরু, বৃহত্তর নোয়াখালী অ্যাসোসিয়েন অব কোরিয়ার যুগ্ম আহ্বায়ক আরিফুর রহমান। ঈদ পুনর্মিলনী ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে বিপুল বাংলাদেশির পদচারণায় মুখর হয়ে ওঠে অনুষ্ঠানস্থল।

শুরুতে পবিত্র কোরআন শরিফ তিলাওয়াত করেন হাফেজ মিজানুর রহমান। এরপর জাতীয় সংগীতের মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠান শুরু হয়। শুভেচ্ছা বক্তব্য দেন  বাংলাদেশ অরগানাইজেশনের সভাপতি আহমেদ রতন ও পুচ্ছন বিদেশি সাহায্য সংস্থার সভাপতি কিম সোন ইন হোয়ান।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে বাংলাদেশ দূতাবাসের প্রথম সচিব জাহিদুল ইসলাম ভূঁইয়া বলেন, দূর প্রবাসে পরিবার-পরিজন ছাড়া প্রবাসীদের জন্য ঈদ বেদনাদায়ক। তার মাঝে এই রকম একটি অনুষ্ঠান প্রবাসীদের জন্য আনন্দদায়ক। ঈদ পুনর্মিলনী ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান আয়োজনে পুচ্ছন্ন সাহায্য সংস্থা ও বাংলাদেশ অরগানাইজেশনের সবার প্রতি আন্তরিক ধন্যবাদ জানান।

আরো বক্তব্য দেন পুচ্ছন জুমিন সেন্টাররের পরিচালক জংছে কিও ইছা, পুচ্ছন সিটি মানবাধিকার সংস্থার কর্মকর্তা মিহোন ডেপিও, বহুজাতিক সাংস্কৃতিক সংস্থার পরিচালক ছে ইললাম হেজাং, হানা ব্যাংক পুচ্ছন সিটির কর্মকর্তা জিসংজাম, পুচ্ছন সিটি পুলিশ কর্মকর্তা ইয়ং ছন ফেজাং।

অনুষ্ঠানের দ্বিতীয় পর্বে জমকালো সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান প্রবাসীদের আনন্দে মাতিয়ে তোলে। সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের শুরুতে কে পপ গ্রুপ নাচ পরিবেশন করে। তার পর শুরু হয় কোরিয়ান স্বনামধন্য  নৃত্যশিল্পীদের নিয়ে নৃত্যানুষ্ঠান বেলি নাচ ও সাম্বা নাচ।

অনুষ্ঠানে গান পরিবেশন করেন প্রবাসী বাংলাদেশি-কোরিয়ার বাঙা বাঙা ছবির অভিনেতা ও গানের শিল্পী খান। কোরিয়ার প্রবাসী বাংলাদেশি গানের শিল্পী সৈয়দ কায় খসরু, আশুতোষ অধিকারী, মহিলা শিল্পী লতা। অনুষ্ঠানের শেষে ভোজসভা ও সবাইকে উপহার দেওয়া হয়।

সার্বিকভাবে অনুষ্ঠানটি প্রবাসীদের কাছে আনন্দময় করতে পরিশ্রম করেন বাংলাদেশ অরগানাইজেশনের সাংগঠনিক সম্পাদক ফেরদৌস রুনী, সহসভাপতি আলী, মান্নান, রাহাত, হক প্রমুখ।

বিপুল বাংলাদেশির উপস্থিতিতে ঈদ পুনর্মিলনী অনুষ্ঠানটি প্রাণবন্ত হয়ে উঠে। উপস্থিত সবাই প্রবাসী কমিউনিটি সংগঠন বাংলাদেশ অরগানাইজেশনের নেতাদের প্রতি শুভেচ্ছা জানান। অনুষ্ঠানে বাংলাদেশি ব্যবসায়ী ও বিভিন্ন কমিউনিটি সংগঠনের নেতা উপস্থিত ছিলেন।

Advertisement
0.79859399795532