Beta

ঘরে পড়ে ছিল মেয়ে-অন্ধ মায়ের লাশ

১৪ নভেম্বর ২০১৭, ২০:৪২

নরসিংদী সদর উপজেলার ঘোড়াদিয়া এলাকার একটি ভাড়া বাসা থেকে আজ মঙ্গলবার সকালে এক অন্ধ মা ও তার শিশু মেয়ের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। ছবি : এনটিভি

নরসিংদী সদর উপজেলার ঘোড়াদিয়া এলাকার একটি ভাড়া বাসা থেকে আজ মঙ্গলবার সকালে এক অন্ধ মা ও তার শিশু মেয়ের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

নিহত ব্যক্তিরা রায়পুরা উপজেলার চরমধুয়া ইউনিয়নের গাজীপুরা গ্রামের রাজিয়া বেগম (৩০) ও তাঁর মেয়ে সাদিয়া বেগম(৫)। ঘটনার পর থেকে রাজিয়ার স্বামী কবির হোসেন পলাতক।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, নিহত রাজিয়া বেগম অন্ধ ছিলেন। তিনি ভিক্ষাবৃত্তি করে জীবিকা নির্বাহ করতেন। স্বামী কবির হোসেন রিকশাচালক। মাদকাসক্ত কবির প্রায়ই টাকার জন্য অন্ধ রাজিয়া বেগমকে নির্যাতন করতেন।

আজ মঙ্গলবার সকাল থেকে রাজিয়ার ঘর বন্ধ দেখে সন্দেহ করেন প্রতিবেশীরা। তারপর ঘরে ঢুকে রাজিয়ার লাশ মেঝেতে ও মেয়ে সাদিয়ার লাশ বিছানার ওপর দেখতে পায়। খবর পেয়ে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে এবং ময়নাতদন্তের জন্য নরসিংদী সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠায়।

নরসিংদী সদর মডেল থানার উপপরিদর্শক (এসআই) তাপস চন্দ্র জানান, নিহতদের গলায় হাতের ছাপ রয়েছে। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে, পারিবারিক কলহের জের ধরে এই মা-মেয়ে হত্যার ঘটনা ঘটেছে। পুলিশ রাজিয়ার স্বামীকে গ্রেপ্তারের জন্য অভিযান শুরু করেছে।

Advertisement
0.84906983375549