Beta

ধর্ষণের পর হত্যার দায়ে ৫ জনের মৃত্যুদণ্ডাদেশ

১৯ জুন ২০১৭, ১৫:১২

শিবগঞ্জ উপজেলায় তরুণীকে ধর্ষণের পর হত্যার দায়ে পাঁচজনের মৃত্যুদণ্ডাদেশ দিয়েছেন চাঁপাইনবাবগঞ্জের একটি আদালত।

আজ সোমবার দুপুরে চাঁপাইনবাবগঞ্জের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-২-এর বিচারক ও অতিরিক্ত দায়রা জজ মো. জিয়াউর রহমান আসামিদের উপস্থিতিতে এই আদেশ দেন। মামলায় ছয়জনকে খালাস দেওয়া হয়েছে।

আসামিরা হলেন শিবগঞ্জ উপজেলার আইড়ামারী গ্রামের জীবন ওরফে বাবু, কেতাব, আলমগীর হোসেন, নুরুল ইসলাম ডাক্তার ও জেনারুল ডাক্তার। আদালত তাঁদের প্রত্যেককে এক লাখ টাকা করে জরিমানাও করেছেন।

চাঁপাইনবাবগঞ্জের অতিরিক্ত সরকারি কৌঁসুলি (এপিপি) আঞ্জুমানআরা বেগম গণমাধ্যমকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।  

মামলার বরাত দিয়ে আইনজীবী জানান, ২০১৪ সালের ২০ এপ্রিল রাত ১০টার দিকে শিবগঞ্জ উপজেলার সাতরশিয়া গ্রামের আইনাল হকের মেয়ে মুনিরা বেগমকে (২২) বিয়ের প্রলোভন দিয়ে একই উপজেলার আইড়ামারী গ্রামের জীবন ওরফে বাবু ডেকে নিয়ে যায়। রাতেই তাঁকে গণধর্ষণের পর হত্যা করা হয়।

এ ঘটনায় মুনিরা বেগমের মা সুলেখা বেগম ২০১৪ সালের ২২ এপ্রিল শিবগঞ্জ থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা শিবগঞ্জ থানার উপপরিদর্শক আবুল কালাম আজাদ ২০১৫ সালের ১০ ফেব্রুয়ারি আদালতে ১১ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল করেন।

মামলার ২০ সাক্ষীর মধ্যে ১৯ জনের সাক্ষ্য গ্রহণ শেষে আদালত এ রায় দেন।

Advertisement
0.81169891357422